ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ইচ্ছেঘুড়ি

বড়দিনের বড় উপহার ক্রিসমাস ট্রি

মীম নোশিন নাওয়াল খান, নিউজরুম এডিটর | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৮৩২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৪, ২০১৪
বড়দিনের বড় উপহার ক্রিসমাস ট্রি

ক্রিসমাস ট্রি বলতেই আমাদের চোখের সামনে ভেসে ওঠে সুসজ্জিত একটি গাছ। ক্রিসমাস ট্রি বড়দিন উদযাপনের একটি অপরিহার্য অংশ।



ক্রিসমাস ট্রি হিসেবে সাধারণত কোনো চিরসবুজ গাছ ব্যবহার করা হয়। তবে সব জায়গায় এসব গাছ পাওয়া যায় না বলে বর্তমানে কৃত্রিম ক্রিসমাস ট্রি-ও ব্যবহার করা হয়। জার্মানিতে প্রথম বড়দিনে ক্রিসমাস ট্রি নামক সাজানো গাছ ব্যবহারের প্রচলন শুরু হয়।  

ক্রিসমাস ট্রি ঐতিহ্য অনুযায়ী প্রথমদিকে আপেল, বাদাম ও অন্যান্য খাদ্যদ্রব্য দিয়ে সাজানো হতো। ১৮ শতাব্দী থেকে ক্রিসমাস ট্রি সাজাতে মোমবাতির ব্যবহার শুরু হয়। পরবর্তীতে ক্রিসমাস লাইট নামক রঙিন বৈদ্যুতিক বাতি ব্যবহার করা শুরু হয়। বর্তমানে ক্রিসমাস ট্রি সাজাতে রঙিন বাতি, ফিতে, রঙিন কাগজসহ নানারকম জিনিস ব্যবহৃত হয়। ক্রিসমাস ট্রি’র একদম উপরে লাগানো হয় একটা তারা অথবা দেবদূতের ছোট মূর্তি।

বড়দিনের সময়ে ক্রিসমাস ট্রি ছোটদের জন্য প্রচুর আনন্দ নিয়ে আসে। ক্রিসমাস ট্রি’র নিচেই সাধারণত শিশুদের জন্য বড়দিনের উপহার রাখা হয়। তাই ক্রিসমাস এর গুরুত্ব শিশুদের কাছে অপরিসীম।

২৫ ডিসেম্বর বড়দিন। তার আগেই চার্চ, বড় বড় হোটেল-রেস্তোঁরা, বাড়িসহ বিভিন্ন স্থানে সাজানো হবে ক্রিসমাস ট্রি।

ওহ, একটা কথা বলিনি! খ্রিষ্টধর্ম্বালম্বীদের অনেকেই বিশ্বাস করেন, ক্রিসমাস ট্রি’র উপরে তারা বসানোর সময় কেউ যদি কোনো ইচ্ছে প্রকাশ করেন, তবে তার সেই ইচ্ছে সত্যি হয়।

একবার ক্রিসমাস ট্রি’র উপরে তারা বসিয়ে দেখবে নাকি সত্যিই ইচ্ছেপূরণ হয় কিনা!

বাংলাদেশ সময়: ০৮৩৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২৪, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa