ঢাকা, শনিবার, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১, ১৩ জুলাই ২০২৪, ০৬ মহররম ১৪৪৬

জাতীয়

পটুয়াখালীতে ২৫ গ্রামে আগাম ঈদুল আজহা উদযাপন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩৫৪ ঘণ্টা, জুন ১৬, ২০২৪
পটুয়াখালীতে ২৫ গ্রামে আগাম ঈদুল আজহা উদযাপন

পটুয়াখালী: সৌদিসহ আরব দেশগুলোর সঙ্গে মিল রেখে প্রতি বছরের মতো এবারও পটুয়াখালী জেলায় অন্তত ২৫ গ্রামে আগাম ঈদুল আযহা উদযাপন হচ্ছে।  

রোববার (১৬ জুন) সকালে ঈদের নামাজের জামাত আদায় শেষে গ্রামগুলোর ঘরে ঘরে বইছে আনন্দের আমেজ।

প্রতিটি বাড়িতে চলছে মিষ্টান্ন মুখ ও মুখরোচক খাবারের আয়োজন।  

প্রতি বছরের চাঁদ দেখার খবরের ওপর নির্ভর করে পটুয়াখালীর বদরপুর দরবারসহ জেলার ২৪টি গ্রামে একদিন আগে ঈদুল আজহা উদযাপন হচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় রোববার (১৬ জুন) সকাল ৯টায় বদরপুর দরবার শরীফের মসজিদে খতিব মাওলানা মো. শফিকুল ইসলাম আব্দুল গণির ইমামতিতে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হয়।  

পূর্বপুরুষ থেকে বৈশ্বিকভাবে আরবি তারিখের সঙ্গে মিল রেখে ঈদ উদযাপন করে আসছেন তারা। সেই মোতাবেক রোববার সকালে ঈদের নামাজ আদায় করেছেন তারা। শান্তিপূর্ণভাবে নামাজ আদায় করতে পারায় খুশি মুসল্লিরা।  


১৯৪০ সাল থেকে দাওয়াতুল ইসলাম বদরপুর দরবারসহ জেলার ২৫ গ্রামবাসী চাঁদ দেখার ওপর নির্ভর করে ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা উদযাপন করে আসছে। সমগ্র মুসলিম জাতিকে এক চাঁদ দেখে এক তারিখে নিজ নিজ এলাকার সময় অনুযায়ী আরবি তারিখে রোজা রাখা, ঈদ উদযাপন ও কোরবানিসহ সব ধর্মীয় কাজ উদযাপনে আহ্বানও জানান দরবার শরীফ জামে মসজিদ খতিব।

এছাড়া জেলার কলাপাড়ার ৭ গ্রামে, রাঙ্গাবালির ২ গ্রামে, গলাচিপার ৩ গ্রামে, দুমকির ২ গ্রাম ও বাউফল উপজেলার ৩ গ্রামে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৫২ ঘণ্টা, জুন ১৬, ২০২৪
এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।