ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০, ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৮ শাবান ১৪৪৫

রাজনীতি

কার্যালয়ে তালা দিলো ইউনিয়ন আ.লীগ, ভাঙলো উপজেলা আ.লীগ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপনডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৫৬ ঘণ্টা, মার্চ ১৯, ২০২৩
কার্যালয়ে তালা দিলো ইউনিয়ন আ.লীগ, ভাঙলো উপজেলা আ.লীগ

জামালপুর: জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভাকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়ে দেন বগারচর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতারা। পরে তালা ভেঙে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের কমিটির অধিকাংশ সদস্যদের অনুপস্থিতিতে বর্ধিত সভা করেছেন বকশীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা।

রোববার (১৯ মার্চ) বিকেলে বকশীগঞ্জে বগারচর ইউনিয়ন বর্ধিত সভাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনাকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে মোতায়ন করা হয় পুলিশ।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-দপ্তর সম্পাদক মোশারফ হোসেন মিরাজ জানান, তৃণমূল আওয়ামী লীগকে শক্তিশালী ও আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর বিজয় সুনিশ্চিত করতে প্রতিটি ইউনিয়নে বর্ধিত সভা করার ঘোষণা দেয় বকশীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ। পুর্ব নির্ধারিত তারিখ অনুযায়ী রোববার ২নং বগারচর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। বিকেলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের সঙ্গে যথারীতি বর্ধিত সভা হয়েছে।

তবে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতাদের লাগানো তালা তালা ভেঙে বর্ধিত সভা করার বিষয়টি অস্বীকার করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের এই নেতা।

শনিবার উপজেলা আওয়ামী লীগের নির্ধারিত বর্ধিত সভা বয়কট করেন বগারচর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। সম্প্রতি উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও স্থানীয় বগারচর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোসাদ্দেকুর রহমান প্রামাণিক মাসুম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি গাজী হোসেন আলীকে নিয়ে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করেন এবং অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ করেন বলে অভিযোগ করেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।

এ ঘটনার প্রতিবাদে মোসাদ্দেকুর রহমান প্রামাণিককে বহিষ্কার না করা পর্যন্ত ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সব কার্যক্রম থেকে তাকে বিরত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়ে অফিসে তালা ঝুলিয়ে দেন তারা।

রোববার সেই তালা ভেঙে অফিসে প্রবেশ করে অভিযুক্ত উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও চেয়ারম্যান মোসাদ্দেকুর রহমান প্রমাণিক মাসুমকে সঙ্গে নিয়ে বর্ধিত সভা করেন বকশীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা।

এই বর্ধিত সভা ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি গাজী হোসেন আলী ও সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমানসহ বেশির ভাগ নেতাকর্মী বয়কট করেন।

এ বিষয়ে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান জানান, উপজেলা আওয়ামী লীগ বর্ধিত সভার বিষয়ে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগকে অবহিত করেনি। এছাড়া এখনো ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের পরিচিতি সভাও অনুষ্ঠিত না হওয়ায় বর্ধিত সভা না করার সিদ্ধান্ত জানানো হয়েছে। কিন্তু উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা জোর করে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের অফিসের তালা ভেঙে প্রবেশ করে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক ছাড়াই বর্ধিত সভা করেছেন, যা গঠনতন্ত্রবিরোধী।

আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় কমিটির অন্তত দুই-তৃতীয়াংশ সদস্য উপস্থিত হওয়ার বিধান থাকলেও সভায় মাত্র ৯ জন সদস্য উপস্থিত হয়েছিলেন বলে জানান ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকুর রহমান।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৮ ঘণ্টা, মার্চ ১৯, ২০২৩
এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।