ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২১ আশ্বিন ১৪২৯, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

বিদ্যুৎ ও জ্বালানি

নবায়নযোগ্য জ্বালানির বিকল্প নেই

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৪৬ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ৮, ২০১৮
নবায়নযোগ্য জ্বালানির বিকল্প নেই

ঢাকা: বিশ্বে জলবায়ু পরিবর্তন ঠেকাতে নবায়নযোগ্য জ্বালানির ব্যবহার বাড়ানোর বিকল্প নেই। এক্ষেত্রে সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি খাতের সংশ্লিষ্টদেরও এগিয়ে আসতে হবে।

শনিবার (৮ সেপ্টেম্বর) সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) ‘এসডিজি বাস্তবায়নের চ্যালেঞ্জ পর্যালোচনা: খাদ্য, জ্বালানি ও বৈষম্য’ শীর্ষক বার্ষিক লেকচারে এ কথা বলেন জাতিসংঘের সাবেক সহকারী মহাসচিব মালয়েশিয়ান অর্থনীতিবিদ অধ্যাপক জোমো কেওমি সুনদারাম।  

তিনি বলেন, প্যারিস ইউএনএফসিসিসি কপ-এ বিশ্বের তাপমাত্রা ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস না বাড়ানোর জন্য একমত হয়েছিলেন বিশ্বনেতারা।

যদিও বিজ্ঞানীরা তাপমাত্রা বৃদ্ধি দেড় ডিগ্রির মধ্যে রাখার পরামর্শ দিয়েছেন। কিন্তু এখন পর্যন্ত বিশ্বে কার্বন ডাই-অক্সাইড ঘনীভূত হয়েছে ৩৯০ পিপিএম। এটি ৪৫০ হলেই তাপমাত্রা ২ ডিগ্রি বেড়ে যাওয়ার শঙ্কা রয়েছে।  

২০৫০ সালের মধ্যে কার্বন নিঃসরণ ৮০ থেকে ৯০ শতাংশ না কমাতে পারলে তাপমাত্রা ২ ডিগ্রি বৃদ্ধি ঠেকানো সম্ভব হবে না বলেও তিনি জানান।  

জোমো সুনদারাম বলেন, অর্থনৈতিক উন্নয়নের সঙ্গে কার্বন নিঃসরণ সরাসরি জড়িত। এতে উন্নত দেশগুলো দায়ী হলেও সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হচ্ছে দক্ষিণের দরিদ্র দেশগুলো।

তিনি বলেন, জীবনমানের উন্নয়ন হবে, কিন্তু জলবায়ু পরিবর্তনের চ্যালেঞ্জ কমাতেই হবে। এজন্য আরও বেশি হারে নবায়নযোগ্য জ্বালানির ব্যবহার বাড়াতে হবে। উন্নয়নের নতুন মেকানিজম খুঁজে বের করতে হবে। প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়াতে হবে।

বিশ্বে আয় বৈষম্য বেড়েই চলেছে মন্তব্য করে অধ্যাপক জোমো বলেন, দারিদ্র্য কিছুটা কমলেও পুষ্টিহীনতা (হিডেন হাঙ্গার) কমেনি। ওজনহীনতার পাশাপাশি স্থূলতা এখন বড় সমস্যা হয়ে দেখা দিয়েছে। এ ব্যাপারে সরকারকে যেমন এগিয়ে আসতে হবে, সামাজিক সচেতনতাও বাড়াতে হবে। সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীও প্রশস্ত করতে হবে।  

অনুষ্ঠানে সিপিডির চেয়ারম্যান অধ্যাপক রেহমান সোবহান, বিশেষ ফেলো ড. মুস্তাফিজুর রহমান, নির্বাহী পরিচালক ড. ফাহমিদা খাতুন উপস্থিত ছিলেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৩৪১ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ০৮, ২০১৭
এজেড/এইচএ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa