ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ মাঘ ১৪২৮, ২৫ জানুয়ারি ২০২২, ২১ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

অর্থনীতি-ব্যবসা

কুইজ বিজয়ীদের পুরস্কার দিল বসুন্ধরা টিস্যু ও এ-ফোর পেপার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯২০ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৯, ২০২১
কুইজ বিজয়ীদের পুরস্কার দিল বসুন্ধরা টিস্যু ও এ-ফোর পেপার ‘বসুন্ধরা টিস্যু তুরুপের তাস-২’ ও ‘বসুন্ধরা এ-ফোর পেপার গেইস অ্যান্ড উইন-২’ শীর্ষক প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের পুরস্কার বিতরণ করা হয়েছে | ছবি: বাদল

ঢাকা: আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ চলাকালে বাংলাদেশি ক্রিকেটপ্রেমীদের আনন্দ আরও বাড়িয়ে দিতে বসুন্ধরা টিস্যু ও বসুন্ধরা এ-ফোর পেপার আয়োজন করে ভিন্নধর্মী এক ফেসবুক ক্যাম্পেইনের।

‘বসুন্ধরা টিস্যু তুরুপের তাস-২’ এবং ‘বসুন্ধরা এ-ফোর পেপার গেইস অ্যান্ড উইন-২’ নামে আয়োজিত সেই প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের পুরস্কার বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার (২৯ নভেম্বর) বিকেলে রাজধানীর বসুন্ধরা সিটির ফুড হলে ৩৫ জন বিজয়ীকে আকর্ষণীয় পুরস্কার ও ক্রেস্ট দেওয়া হয়।

পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বসুন্ধরা টিস্যুর ডিজিএম কাজী মো. ইমদাদুল হক, বসুন্ধরা এ-ফোর পেপার ও খাতার এজিএম রাজু আহমেদ, ব্র্যান্ড ম্যানেজার আফসার আলম রাব্বি, বসুন্ধরা সেক্টর সি-এর হেড অব মার্কেটিং মো. আলাউদ্দিন, বসুন্ধরা টিস্যুর ব্র্যান্ড ম্যানেজার ইমরানুল কবিরসহ বসুন্ধরা গ্রুপের অন্যান্য কর্মকর্তারা।



অনুষ্ঠানে বসুন্ধরা টিস্যুর কর্মকর্তা বলেন, টিস্যু ইন্ডাস্ট্রিতে বসুন্ধরা পাওনিয়র। আমরা এর কোয়ালিটিতে ছাড় দেই না। দেশের অন্য যে কোনো ব্র্যান্ডের চেয়ে আমাদের টিস্যুর মান অনেক উন্নতমানের। আমাদের টিস্যুর প্রাইস রিজেনেবল। নিয়মিত নতুন গবেষণা করে নতুনত্ব আনার চেষ্টা করছি। এছাড়া বসুন্ধরা টিস্যুর প্রতিটি প্যাকেট থেকে আমরা এক টাকা করে স্পেশাল শিশুদের জন্য ব্যবহার করে থাকি। এই ডোনেশন থেকে একটি বিদ্যালয়ও তৈরি করা হয়েছে। তাই বসুন্ধরা টিস্যু ব্যবহারের মাধ্যমে একজন গ্রাহক শিশুদের উন্নয়নেও ভূমিকা রাখছে।

তারা বলেন, মানুষ করোনার সময় থেকে নিজেদের সুরক্ষিত রাখতে চেষ্টা করে যাচ্ছেন। সেই বিষয়টি আজ থেকে দুই দশক আগে বসুন্ধরা ভেবেছে এবং সেই লক্ষ্যেই কাজ করেছে। বর্তামানে বাংলাদেশের বাইরেও ২৭টি দেশে বসুন্ধরা টিস্যু রপ্তানি করা হয়। শুধু টিস্যু নয়, বসুন্ধরার সব পণ্যই ১ নম্বর। কেননা বসুন্ধরা কোয়ালিটিতে ছাড় দেয় না। আর তাই আপনাদের এতো ভালোবাসা।

পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন বসুন্ধরা টিস্যুর ক্রিয়েটিভ ডিজাইনার নাঈম আহমেদ। আয়োজনে কুইজ বিজয়ীদের মধ্য থেকে লটারির মাধ্যমে সারপ্রাইজ গিফট হিসেবে পাঁচজনকে একটি করে মোবাইল ফোন উপহার দেওয়া হয়।

এর আগে বসুন্ধরা টিস্যু তুরুপের তাস ও বসুন্ধরা এ-ফোর পেপার গেইস অ্যান্ড উইন সিজন-২-এ দেশের হাজারো ক্রিকেটপ্রেমীর অংশগ্রহণে এই ক্যাম্পেইন অনন্য এক মাত্রা পায়। বসুন্ধরা টিস্যু ও বসুন্ধরা খাতার অফিসিয়াল ফেসবুক পেজের কুইজে কমেন্ট করার মাধ্যমে প্রতিযোগীরা এতে অংশ নেন। সেই সব কমেন্ট থেকে সঠিক উত্তরদাতা বাছাই করা হয়। পরবর্তীতে তাদের মধ্য থেকে লটারির মাধ্যমে ৩৫ জন ভাগ্যবান বিজয়ী নির্বাচিত হন।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১১ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৯, ২০২১
এইচএমএস/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa