ঢাকা, শুক্রবার, ১২ মাঘ ১৪২৯, ২৭ জানুয়ারি ২০২৩, ০৪ রজব ১৪৪৪

শিক্ষা

রাবিতে মাসব্যাপী পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি শুরু

রাবি করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৩৪০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১, ২০২২
রাবিতে মাসব্যাপী পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি শুরু

রাবি: বিজয়ের মাসে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় (রাবি) প্রশাসনের‌ উদ্যোগে মাসব্যাপী পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচির আয়োজন করা হয়েছে।  

বৃহস্পতিবার (১ ডিসেম্বর) সকাল ১১টায় গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিয়ে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য অধ্যাপক সুলতান-উল-ইসলাম ও অধ্যাপক হুমায়ুন কবীর।

বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যকলা, রাষ্ট্রবিজ্ঞান, অর্থনীতি, সমাজবিজ্ঞান, জীববিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ বিভাগের সামনে পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচিতে অংশ নেন। এছাড়া বিএনসিসি, রোভার স্কাউট, বিডি ক্লিনসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন এ কর্মসূচিতে অংশ নেয়। পর্যায়ক্রমে অন্যান্য বিভাগ মাসব্যাপী এ কর্মসূচিতে অংশ নেবে।  

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য হুমায়ুন কবীর বলেন, আমাদের মূল লক্ষ্য হচ্ছে ক্যাম্পাসে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন পরিবেশ বজায় রাখা। যাতে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সবাই এর সুফল পেতে পারে। যারা যেখানে সেখানে ময়লা ফেলছেন, তাদের এ কাজ থেকে বিরত থাকার আহ্বান জানাবো। এ অভিযান মাস জুড়ে চলবে। আমরা সবাই যদি নিজ নিজ জায়গা থেকে সচেতন হতে পারি, তাহলেই একটি সুন্দর, পরিচ্ছন্ন দেশ গড়া সম্ভব।  

গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক ড. মুসতাক আহমেদ বলেন, আমরা পহেলা ডিসেম্বর পরিচ্ছন্নতা অভিযান শুরু করলাম, যা পুরো মাস জুড়ে চলবে। এ মাসে দেশ স্বাধীন করে বিজয় অর্জন করেছি। পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীকে পরাজিত করে দেশকে পরিষ্কার করেছিলাম। সেই ধারাবাহিকতায় পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান শুরু করেছি। শুধু আমাদের রাস্তাঘাটের পরিচ্ছন্নতায় সীমাবদ্ধ থাকলে চলবে না। আমাদের মনও পরিষ্কার রাখতে হবে। যাতে আমাদের দেশে কোনো ধরনের আবর্জনা জমতে না পারে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক আসাবুল হক বলেন, ক্যাম্পাস যেন পরিষ্কার থাকে এর জন্য পুরো ক্যাম্পাসে অনেকগুলো ডাস্টবিন দেওয়া হয়েছে। ডাস্টবিনের সংখ্যা পর্যায়ক্রমে আরও বাড়ানো হবে। শিক্ষার্থীসহ আমরা সবার মধ্যে জনসচেতনতা বাড়ানোর জন্য মাসব্যাপী এ কার্যক্রম শুরু করেছি, যাতে সবাই নির্দিষ্ট স্থানে ময়লা আবর্জনা ফেলে।

এসময় জনসংযোগ দপ্তরের প্রশাসক অধ্যাপক প্রদীপ কুমার পাণ্ডে, গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক এবিএম সাইফুল ইসলামসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৩৩৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০১, ২০২২
এসআই


 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa