ঢাকা, শনিবার, ৩০ আশ্বিন ১৪২৮, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

ফিচার

এইচএসসির সাফল্যগাথা : উৎসবে মেতেছিল শিক্ষার্থীরা

আরিফ আরমান | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৬২৭ ঘণ্টা, জুলাই ১৬, ২০১০
এইচএসসির সাফল্যগাথা : উৎসবে মেতেছিল শিক্ষার্থীরা

কদিন ধরেই সামিউলের মন ভালো নেই। সকাল থেকে তার চিন্তা আরো বেড়েছে।

আজ ওর এইচএসসির পরীক্ষার ফল প্রকাশ হবে। ১৫ জুলাই, ঘড়ির কাঁটা একসময় পৌঁছালো বেলা ১২টায়। কলেজ ক্যাম্পাসে ঢুকেই জানতে পারলো এসএসসির মতো এবারও জিপিএ-৫ পেয়েছে সামিউল। উল্লসিত সামিউলের বাধভাঙা আনন্দ আর ঠেকায় কে? কলেজের পুরো ক্যাম্পাসজুড়ে সাজ সাজ রব। আনন্দের বন্যা বইছে সর্বত্র। ন্যাশনাল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের মতো এমনই চিত্র ছিল ঢাকার সেরা কলেজগুলোর।

ফল প্রকাশের পরপরই কলেজগুলোতে শুরু হয় শিক্ষার্থীদের বাঁধভাঙা উল্লাস। একে অপরকে জড়িয়ে চিৎকার, গান আর নাচানাচির মধ্য দিয়ে ভাগ করে নেয় ভালো ফলের আনন্দ। শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি অভিভাবকরাও শামিল হন এই উৎসবে।

ঢাকা বোর্ডের সেরা দশের মধ্যে এবার প্রথম ও দ্বিতীয় স্থান অধিকার করেছে যথাক্রমে ময়মনসিংহ ক্যাডেট কলেজ ও মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজ। বাকি আটটি কলেজই ঢাকা মহানগরীর। এগুলো হচ্ছে হলিক্রস কলেজ (তৃতীয়), রাজউক উত্তরা মডেল কলেজ (চতুর্থ), রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজ (পঞ্চম), নটর ডেম কলেজ (ষষ্ঠ), ঢাকা সিটি কলেজ (সপ্তম), ভিকারুননিসা নূন কলেজ (অষ্টম), বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ রাইফেল্স পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ (নবম) এবং ঢাকা কলেজ (দশম)।

বেলা ১২টায় হলিক্রস স্কুল অ্যান্ড কলেজের খেলার মাঠে বসানো বোর্ডে টাঙিয়ে দেওয়া হয় ফলাফল। চিন্তাভরা মন নিয়ে একে একে সবাই যারা যার ফল দেখতে শুরু করে। শুরু হয় ভালো ফল করা শিক্ষার্থীদের আনন্দ উৎসব। ঢাকার অন্য কলেজগুলোর মধ্যে সবচেয়ে ভালো করা এই কলেজের শিক্ষার্থীদের আনন্দটা ছিল একটু বেশি।

ছোট্ট ক্যাম্পাসেও ভালো ফলের উচ্ছ্বাসের কমতি ছিল না সিটি কলেজের শিক্ষার্থীদের। তাই তাদের আনন্দ শেষ পর্যন্ত কলেজ সংলগ্ন রাস্তায় গিয়ে পৌঁছেছিল। কলেজের জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থী সুমাইয়া ইসলাম মেঘলা জানালো, আমি যে জিপিএ-৫ পেয়েছি এটা প্রথমে বিশ্বাস করতে পারিনি। কয়েকবার দেখার পর আমি বিশ্বাস করেছি যে আমি জিপিএ-৫ পেয়েছি। জিপিএ-৫ পেয়ে আমি খুব খুশি। আশা করি উচ্চশিক্ষার জন্য ভালো একটা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে পারবো।

সকাল থেকেই কলেজ ক্যাম্পাসে এসে ভিড় জমায় বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ রাইফেলস পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের ফল প্রত্যাশীরা। ফল একটু দেরিতে পৌঁছলেও শিক্ষার্থীদের আনন্দের কমতি ছিল না। তবে গতবারের চেয়ে কম জিপিএ-৫ পেয়েছে এই কলেজের শিক্ষার্থীরা। এদিকে রাজনীতিসচেতন ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থীরা গতবারের চেয়ে ভালো ফলাফল করতে পারেনি। তবে এ নিয়ে তাদের মধ্যে কোনো ক্ষোভের দেখা মেলেনি।

অন্য সেরা কলেজগুলোর মধ্যে রাজউক উত্তরা মডেল কলেজ আর রেসিডেন্সিয়াল মডেল কলেজের শিক্ষার্থীদেরও আনন্দের সীমা ছিল না। ফল পেয়ে শিক্ষার্থীরা একে অন্যকে জড়িয়ে, হাততালি দিয়ে, চিৎকার করে আনন্দ ভাগ করে নেয়। ঐতিহ্য ধরে রাখা নটর ডেম কলেজের শিক্ষার্থীরা নানা আইনকানুনের মধ্যে থেকেও আনন্দ কম করেনি। নতুন নিয়মে গতবারের চেয়ে এবার ফলাফলের দিক দিয়ে তালিকা থেকে পিছিয়ে পড়েছে এই কলেজটি।

তবে ফলাফল অনেকের জন্য সুসংবাদ বয়ে আনলেও অনেকের জন্যই এনেছে দুসংবাদ। এই দুসংবাদ যাদের জন্য এসেছে তাদের কষ্টের সীমা ছিল না। কলেজ ক্যাম্পাসগুলো এরকম নানা চিত্রের দেখা মিলেছে।

বাংলাদেশ স্থানীয় সময় ১৪৩০, জুলাই ১৬, ২০১০  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa