ঢাকা, বুধবার, ১৫ আষাঢ় ১৪২৯, ২৯ জুন ২০২২, ২৯ জিলকদ ১৪৪৩

স্বাস্থ্য

এইডসের ঝুঁকিতে হিজড়া সম্প্রদায়ের মানুষ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭৩৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৮, ২০১৮
এইডসের ঝুঁকিতে হিজড়া সম্প্রদায়ের মানুষ

ঢাকা: বাংলাদেশে এইডসের ক্ষেত্রে উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠী হলো ট্রান্সজেন্ডার বা হিজড়া সম্প্রদায়ের মানুষ।

তাই এ জনগোষ্ঠীকে অবহেলা না করে সহানুভূতির হাত বাড়িয়ে দিয়ে তাদের স্বাস্থ্য সেবা ও স্বাস্থ্য অধিকার নিশ্চিত করার আহ্বান জানিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের জাতীয় এইডস/এসটিডি প্রোগ্রামের (এএসপি) স্টেকহোল্ডাররা।

সোমবার (১৭ ডিসেম্বর) রাজধানীর কাকরাইলে বন্ধু সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটির কার্যালয়ে এক মতবিনিময় সভায় বক্তারা এ মতামত দেন।

সভায় স্টেকহোল্ডাররা বলেন, একজন ট্রান্সজেন্ডার বা হিজড়া ব্যক্তির বৈষম্য প্রথমেই তার পরিবার থেকে শুরু হয়। এ বৈষম্যের ফলে তারা স্বাস্থ্য ও তথ্য সেবা গ্রহণ করা থেকে বিরত থাকে। ফলে অসেচতনতাবশত এইডসে আক্রান্ত হয়েও তারা স্বাস্থ্য সেবার আওতায় আসতে চায় না। এছাড়া সমাজে ঘৃণা ও বৈষম্যের ভয়ে নিজের পরিচয়কে গোপন করে। এজন্য আমাদের সকলকে সচেতন হতে হবে এবং তাদের স্বাস্থ্য সেবার আওতায় আনতে হবে। এছাড়া এইচআইভি/এইডসর ঝুঁকি ও ভয়াবহতা সম্পর্কে তাদের অবগত করতে হবে।  

সংগঠনটির নির্বাহী পরিচালক সালেহ আহমেদের সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন- জাতীয় এইডস/এসটিডি প্রোগ্রামের ডিরেক্টর ডা. মো. আমিনুল ইসলাম মিঞা।  

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন- জাতীয় এইডস/এসটিডি প্রোগ্রামের ডেপুটি ডিরেক্টর ডা. মো. বেলাল হোসেন, আইসিডিডিআর,বি’র প্রকল্প সমন্বয়ক ড. একেএম মাসুদ রানা এবং সংগঠনটির পরিচালক ফসিউল আহসান প্রমুখ।  

সভায় মূল বক্তব্য দেন সংগঠনটির দলীয় প্রধান আখতার জাহান শিল্পী। তিনি এ ক্ষেত্রে সংগঠনটির কার্যক্রম বর্ণনার পাশাপাশি এইচআইভি প্রতিরোধে বাংলাদেশ সরকারের কর্ম-পরিকল্পনা ও কার্যক্রম বিস্তারিত বর্ণনা করেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৩০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৭, ২০১৮
এমএএম/এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa