ঢাকা, বুধবার, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

ভারত

আগরতলায় আইন অমান্য আন্দোলন ও রাজ ভবন অভিযান কংগ্রেসের

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০২ ঘণ্টা, আগস্ট ৫, ২০২২
আগরতলায়  আইন অমান্য আন্দোলন ও রাজ ভবন অভিযান কংগ্রেসের

আগরতলা (ত্রিপুরা,ভারত): ভারতের বিরোধী দল কংগ্রেস পার্টি অভিযোগ করেছে দেশে (ভারত) বর্তমানে প্রতিনিয়ত দ্রব্যমূল্য বাড়ছে, কিন্তু বর্তমান সরকার তা রোধ করতে ব্যর্থ। সিবিআই, ইডির মতো স্বাধীন কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাগুলিকে সরকার বিরোধীদলের নেতাদের পেছনে লাগিয়ে দিচ্ছে, তাদেরকে ভয়-ভীতি দেখিয়ে চুপ করে রাখার জন্য।

এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে দেশব্যাপী আন্দোলন কর্মসূচি পালন করছে কংগ্রেস দল।   এর অংশ হিসেবে শুক্রবার (৫ অগাস্ট) আগরতলায় আইন অমান্য আন্দোলন ও রাজ ভবন অভিযান কর্মসূচি পালন করে ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেস। এদিন রাজধানীর পোস্ট অফিস চৌমুহনির কংগ্রেস ভবনের সামনে থেকে দলের নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে বিভিন্ন রাস্তা প্রদক্ষিণ শেষে রাজ ভবনের দিকে যাওয়ার চেষ্টা করে।

তারা কুঞ্জবন এলাকায় গান্ধীমূর্তির পাদদেশে পৌঁছালে পুলিশের তাদের অবরোধ ও আটকে ফেলে। তখন পুলিশের সঙ্গে তাদের ধস্তাধস্তি হয়। মিছিলে থাকা দলের কর্মী-সমর্থকরা পুলিশের প্রতিরোধ ভেঙে সামনে এগিয়ে যান। পরবর্তী সময় পুলিশ তাদের আটক করে।

এদিনের এই কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন ত্রিপুরা প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বিরজিৎ সিনহা, বিধায়ক সুদীপ রায় বর্মন প্রমুখ।

পরে গান্ধীমূর্তির পাদদেশে তারা একটি পথসভার আয়োজন করেন। এতে বক্তব্য রাখতে গিয়ে বিধায়ক সুদীপ রায় বর্মন বলেন, গত ৩০ বছরের মধ্যে মুদ্রাস্ফীতি চরম আকার ধারণ করেছে। গত চার বছরের দেশের মুদ্রাস্ফীতি দুই সংখ্যা ছুঁয়েছে। কংগ্রেস সরকারের সময় ভারতে দ্রব্যমূল্য এবং রান্নার গ্যাসের দাম বৃদ্ধির অভিযোগ এনে দেশের মানুষকে স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন মোদি। তিনি (মোদি) মানুষকে মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়ে স্বপ্ন দেখিয়ে ছিলেন।

আগরতলার পাশাপাশি এদিন ত্রিপুরার ৮ জেলায়ও এই কর্মসূচি পালন করে রাজ্য কংগ্রেস।

বাংলাদেশ সময়: ১৬০১ ঘণ্টা, আগস্ট, ২০২২
এসসিএন/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa