ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩ কার্তিক ১৪২৮, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আইন ও আদালত

বাবা হত্যার দায়ে ছেলের যাবজ্জীবন

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬৩৫ ঘণ্টা, জুন ১৯, ২০১৬
বাবা হত্যার দায়ে ছেলের যাবজ্জীবন

ঝালকাঠি: ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলায় বাবা হত্যার দায়ে ছেলে মো. কামাল হোসেনকে (৩০) যাবজ্জীবন কারাদণ্ড, ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও দুই বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন জেলা ও দায়রা জজ আদালত।

রোববার (১৯ জুন) দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. শফিকুল করিম এ রায় দেন।

রায় ঘোষণার সময় কামাল হোসেন আদালতে উপস্থিত ছিলেন। জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) আব্দুল মান্নান রসুল বিষয়টি বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেছেন।

মামলার নথি ও আদালত সূত্রে জানা গেছে, ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার রোলা গ্রামে ২০১৪ সালের ১০ নভেম্বর ভোরে মাদকাসক্ত ছেলে মো. কামাল হোসেন তার মা জয়তুন্নেছাকে কলাসহ ঝুড়ি মাথায় তুলে দিতে বলেন। বৃদ্ধ মা ঝুড়ি মাথায় তুলে দেওয়ার সময় তা মাথা থেকে পড়ে গিয়ে পাকা কলা নষ্ট হয়ে যায়।

কলা নষ্ট হয়ে যাওয়ায় কামাল হোসেন তার বাবা সিরাজ হাওলাদারের (৬৫) কাছে পাঁচশ’ টাকা দাবি করেন। টাকা দিতে অস্বীকার করলে ক্ষিপ্ত হয়ে কামাল দরজার লাঠি দিয়ে তার বাবার মাথায় আঘাত করেন। এসময় সিরাজ হাওলাদার জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। বাড়ির সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে রাজাপুর স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

বাবার মৃত্যুর খবর শুনে কামাল হাওলাদার পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে গ্রামের লোকজন তাকে আটক করে রাজাপুর থানা পুলিশে সোপর্দ করেন।

এ ঘটনায় কামাল হোসেনকে একমাত্র আসামি করে তার মা জয়তুন্নেছা রাজাপুর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

রাজাপুর থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) আ. বারেক ২০১৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। ঝালকাঠি জেলা ও দায়রা জজ আদালত ১৮ কার্য দিবসে ১৪ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে এ রায় ঘোষণা করেন।

রাষ্ট্র্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করেন পাবলিক প্রসিকিউটর আব্দুল মান্নান রসুল ও আসামিপক্ষে ছিলেন এস্টেট ডিফেন্স কার্তিক চন্দ্র দত্ত।

বাংলাদেশ সময়: ১৬৩২ ঘণ্টা, জুন ১৯, ২০১৬
আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa