ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

আইন ও আদালত

স্কুলছাত্র শিহাব হত্যা: আত্মসমর্পণের পর ৪ শিক্ষক কারাগারে

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪২ ঘণ্টা, আগস্ট ১০, ২০২২
স্কুলছাত্র শিহাব হত্যা: আত্মসমর্পণের পর ৪ শিক্ষক কারাগারে বাঁয়ে শিহাব, ডানে পুলিশ হেফাজতে চার শিক্ষক

টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইলে সৃষ্টি একাডেমিক স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র শিহাব মিয়া হত্যা মামলার আসামি চার শিক্ষককে আত্মসমর্পণের পর কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

বুধবার (১০ আগস্ট) বিকেলে টাঙ্গাইলের ভারপ্রাপ্ত জেলা ও দায়রা জজ মাসুদ পারভেজের আদালতে তারা আত্মসমর্পণ করেন।

এ চার শিক্ষক হলেন বিপ্লব চন্দ্র সরকার (৩০), আসলাম হোসেন আশরাফ (৩০), মো. মাসুদ রানা (৪০) ও বিজন কুমার সাহা (৪০)।

টাঙ্গাইলের সরকারি কৌঁসুলি এস আকবর খান জানান, আত্মসমর্পণ করা চার আসামি গত ৩০ জুন উচ্চ আদালতে জামিন প্রার্থনা করেছিলেন। আদালত তাদের ছয় সপ্তাহের মধ্যে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণের আদেশ দিয়েছিলেন। বুধবার তারা টাঙ্গাইল জেলা ও দায়রা জজ আদালতে আত্মসমর্পণ করেন।  

বাদীপক্ষের আইনজীবী রাসেল রানা জানান, আসামিদের টাঙ্গাইল জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত ২০ জুন শহরের বিশ্বাস বেতকা এলাকায় সৃষ্টি একাডেমিক স্কুলের ছাত্রাবাসের সাততলার বাথরুম থেকে শিহাব মিয়ার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় প্রথমে টাঙ্গাইল সদর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়। ২৬ জুন ডাক্তারি পরীক্ষার প্রতিবেদনে শিহাবকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়।

এর আগে এ মামলার আসামি আবু বক্কর সিদ্দিক নামে এক শিক্ষককে পুলিশ গ্রেফতার করে। রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের পর তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

নিহত শিহাব মিয়া টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার বেরবাড়ি গ্রামের ইলিয়াস হোসেনের ছেলে। সে ছাত্রাবাসে থেকে সৃষ্টি একাডেমিক স্কুলে লেখাপড়া করত।

বাংলাদেশ সময়: ২১৩৯ ঘণ্টা, আগস্ট ১০, ২০২২
এসআই

 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa