ঢাকা, শনিবার, ২৯ চৈত্র ১৪৩০, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৩ শাওয়াল ১৪৪৫

নিউইয়র্ক

নিউইয়র্ক স্টেট আ’লীগের শোক দিবস পালন

নিউজ ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০৮ ঘণ্টা, আগস্ট ১৯, ২০১৫
নিউইয়র্ক স্টেট আ’লীগের শোক দিবস পালন ছবি: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

নিউইয়র্ক: নিউইয়র্ক স্টেট আওয়ামী লীগের উদ্যোগে পালিত হলো জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪০তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস।

রোববার (১৬ আগস্ট) বঙ্কসের বাংলা গার্ডেন রেস্টুরেন্টে আয়োজিত শোক দিবসের এ আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মুক্তিযোদ্ধা তোফায়েল আহম্মদ চৌধুরী।

এতে সভাপতিত্ব করেন আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা মুজিবুর রহমান মিঞা।

নিউইয়র্ক স্টেট আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আজমলের পরিচালনায় সভার শুরুতেই কোরআন তিলাওয়াত করা হয় এবং বঙ্গবন্ধু ও ১৫ই আগস্টের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। দোয়া পরিচালনা করেন ডা. আব্দুল মালেক।

সভায় বক্তব্য রাখেন- যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রহীম বাদশা, নিউইয়র্ক স্টেট আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা প্রফেসর হাবিব উল্লাহ, সহ-সভাপতি শেখ আতিকুল ইসলাম, মো. মনির হোসেন, রফিকুল ইসলাম, সাজ্জাদ হোসেন বাচ্চু ও এম আর সেলীম, সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন কবির, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক স্বীকৃতি বড়ুয়া, সদস্য এম এন জিন্নাত, জহুরুল ইসলাম ও আবুল বাশার মিলন, সাবেক ছাত্রনেতা শফিকুল আলাম শাহীদ প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বুকের রক্ত দিয়ে আমাদের ঋণী করে গেছেন। বাঙালি জাতিকে মুক্তির পথ দেখাতে তিনি যে ত্যাগ স্বীকার করেছেন তা বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী পড়লেই বোঝা যায়। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে লালন করে তার স্বপ্নের সুখী-সমৃদ্ধ সোনার বাংলা গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে হবে। যারা শুধু নিজের স্বার্থের জন্য রাজনীতি করেন তাদের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে।

সভায় সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আজমল চারটি প্রস্তাব পেশ করেন- ১. জাতীয় শোক দিবসকে আন্তর্জাতিক শোক দিবসে রূপান্তরিত করতে জনমত গড়ে তুলতে হবে। ২. আগামীতে বাংলাদেশের সব রাজনৈতিক দলের সমন্বয়ে সার্বজনীনভাবে জাতীয় শোক দিবস পালন করতে হবে। ৩. যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায় পালিয়ে থাকা বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারীদের দেশে ফিরে নিতে জনমত গড়ে তুলে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডিয়ান সরকারের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে হবে। ৪. বঙ্গবন্ধুর হত্যাকারী ও যুদ্ধাপরাধীদের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করতে হবে। আলোচনা সভায় উপস্থিত নেতারা প্রস্তাবগুলো সমর্থন করেন।

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন- আব্দুর রশিদ, কাজী মনিরুজ্জামান, সাদিকুর রহমান, টিটু, নুরুল ইসলাম, শহিদুল ইসলাম প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১২০৮ ঘণ্টা, আগস্ট ১৯, ২০১৫
বিজ্ঞপ্তি/আরএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

নিউইয়র্ক এর সর্বশেষ