ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

অন্যান্য খেলা

ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস শরীরগঠন প্রতিযোগিতার সমাপ্তি

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১১৪ ঘণ্টা, মার্চ ২৯, ২০১৬
ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস শরীরগঠন প্রতিযোগিতার সমাপ্তি

ঢাকা: ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় ‘ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস পুরুষ উন্মুক্ত শরীরগঠন প্রতিযোগিতা-২০১৬’ এর চূড়ান্তপর্ব মঙ্গলবার (২৯ মার্চ) পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে।  

সকালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে পুরস্কার বিতরণ করেন যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী শ্রী বীরেন শিকদার।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৃষ্ঠপোষক প্রতিষ্ঠান ওয়ালটন গ্রুপের স্পোর্টস এন্ড ওয়েলফেয়ার বিভাগের প্রধান ও সিনিয়র এডিশনাল ডিরেক্টর এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার (ডন)। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন ওয়ালটন গ্রুপের এজিএম মেহরাব হোসেন আসিফ, বাংলাদেশ শরীরগঠন ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক মিস্টার বাংলাদেশ মো. নজরুল ইসলামসহ ফেডারেশনের অন্যান্য কর্মকর্তারা।

ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস পুরুষ উন্মুক্ত শরীরগঠন প্রতিযোগিতার ৬০, ৬৫, ৭০, ৭৫, ৮০ ও ৮০+ কেজি দৈহিক ওজন শ্রেণিতে প্রথম হয়েছেন যথাক্রমে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মো. ইসমাইল হোসেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মো. আরমান আলী, গ্যালাক্সি জিম-১, ডেমরা, ঢাকা এর মো. আল আমিন শরীফ, হ্যামার জিম, উত্তরা, ঢাকা এর মো. আসলাম, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মো. পাভেল আহমেদ এবং এডোনাইজ ফিটনেস সেন্টার লিঃ ঢাকা এর মো. রায়হানুর রহমান।

প্রতিযোগিতায় সেরাদের সেরা হন এডোনাইজ ফিটনেস সেন্টার লিঃ ঢাকা এর মো. রায়হানুর রহমান।

প্রতিটি ওজন শ্রেণির প্রথম স্থান অর্জনকারীকে স্বর্ণপদক, ২ হাজার টাকা প্রাইজমানি, ওয়ালটনের পক্ষ থেকে পুরস্কার ও সনদপত্র দেওয়া হয়। দ্বিতীয় স্থান অর্জনকারীকে রৌপ্য পদক, ওয়ালটনের পক্ষ থেকে পুরস্কার ও সনদপত্র। তৃতীয় স্থান অর্জনকারীকে ব্রোঞ্জ পদক, ওয়ালটনের পক্ষ থেকে পুরস্কার ও সনদপত্র। চতুর্থ, পঞ্চম ও ষষ্ঠ স্থান অর্জনকারীদের ওয়ালটনের পক্ষ থেকে পুরস্কার ও সনদপত্র
দেওয়া হয়।
 
প্রতিমন্ত্রী শ্রী বীরেন শিকদার ওয়ালটনের প্রশংসা করে বলেন, ‘ওয়ালটন আমাদের দেশি কোম্পানি। তারা সব ধরনের খেলাধুলায় পৃষ্ঠপোষকতা করছে। সে কারণে তাদেরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি। পাশাপাশি ওয়ালটনের অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকুক সেই কামনা করছি। ’

এক বক্তব্যে এফ.এম. ইকবাল বিন আনোয়ার বলেন, ‘ওয়ালটন গ্রুপ মাদকমুক্ত সমাজ গঠনে বিশ্বাসী। যারা শরীরগঠন করে তারা নির্দিষ্ট ও নিয়মমাফিক খাবারের বাইরে কিছুই খায় না। এমন কী কোল্ড ড্রিকসও কিংবা ফাস্ট ফুডও না। সুতরাং তাদের মাদকাসক্ত হওয়ার কোনো সম্ভাবনা নেই। তরুণ প্রজন্মকে আরো বেশি শরীরগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ত করা গেলে মাদকমুক্ত, সুস্থ্য ও মেধাবী জাতি গঠন করা সম্ভব। ’

ওয়ালটন গ্রুপের প্রশংসা করে বাংলাদেশ শরীরগঠন ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম বলেন, ‘স্বাধীনতা দিবস শরীরগঠন প্রতিযোগিতায় ওয়ালটন পৃষ্ঠপোষকতা করতে এগিয়ে আসায় তাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি। পাশাপাশি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। তারা এগিয়ে না আসলে হয়তো এই ধরনের আয়োজন করাটা আমাদের জন্য কঠিন হতো। আশা করছি, ভবিষ্যতেও ওয়ালটন গ্রুপকে পাশে পাব আমরা। ’

এবারের ওয়ালটন স্বাধীনতা দিবস পুরুষ উন্মুক্ত শরীরগঠন প্রতিযোগিতায় বিভিন্ন ওজন শ্রেণিতে প্রায় ৫০ টি ক্লাব/সংস্থার ২০০ জন বডি বিল্ডার অংশ নেন। এই প্রতিযোগিতার ইভেন্ট পার্টনার ছিল ওয়ালটন গ্রুপের জনপ্রিয় ব্র্যান্ড মার্সেল।

বাংলাদেশ সময়: ২১১০ ঘণ্টা, মার্চ ২৯, ২০১৬
এসকে/আরএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa