ঢাকা, শুক্রবার, ৬ বৈশাখ ১৪৩১, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ০৯ শাওয়াল ১৪৪৫

শিক্ষা

‘মানসম্পন্ন প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির সংখ্যা খুবই কম’

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪৫৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩১, ২০১৪
‘মানসম্পন্ন প্রাইভেট ইউনিভার্সিটির সংখ্যা খুবই কম’ ড. এ কে আজাদ চৌধুরী

ঢাকা: ঢাকায় ‘মানসম্পন্ন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা খুবই কম’ বলে মন্তব্য করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের চেয়ারম্যান ও ঢাবির সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ড. এ কে আজাদ চৌধুরী।

বুধবার দুপুরে দেড়টায় রাজধানীর বনানীতে ফারইস্ট ইন্টারন্যাশনাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে মহান বিজয় দিবস-২০১৪ উপলক্ষে ‘বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

 
 
প্রফেসর ড. এ কে আজাদ চৌধুরী বলেন, যাদরেকে আমরা মানসম্পন্ন বিশ্ববিদ্যালয় বলে মনে করছি, তাদের অতীত ভালো নয়। এখনো তাদের অনেক সমস্যা রয়ে গেছে। এই সমস্যাগুলো কোনোভাবেই উৎঘাটন হচ্ছে না। আমি জানি এগুলো কি হালে রয়েছে। তাই এই প্রতিষ্ঠানগুলোর ব্যাপারে আমি সন্তুষ্ট নই।

তিনি বলেন, ইউজিসি’র চেয়ারম্যান হিসেবে আমি মনে করি ঢাকায় এখনো মানসম্পন্ন বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার প্রয়োজন আছে। যারা প্রকৃতপক্ষে শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষার আলো ছড়িয়ে দেবে।

তিনি বলেন, সরকাররের পক্ষ থেকে রাজধানীতে নতুন কোনো বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার অনুমতি দেওয়ার কথা ছিলো না। কিন্তু গুণগত মান সম্পন্ন শিক্ষার আলো ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে বিতরণের লক্ষ্যেই ফারইস্ট ইন্টারন্যাশনাল বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার অনুমতি দিয়েছে সরকার।  

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, বর্তমানে শিক্ষার মান উন্নতির দিকে যাচ্ছে। সেদিন বেশি দুরে নয়, যখন তোমরা মান সম্পন্ন শিক্ষার আলো নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বেড়িয়ে আসবে, তখন দেশের উন্নতির শীর্ষ চূঁড়ায় থাকবে।

তিনি বলেন, নিজের দেশের সঠিক ইতিহাস সম্পর্কে জানতে হবে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে মনে ধারণ করতে হবে। সমাজে নিজেকে প্রতিষ্ঠত করতে হলে শিক্ষার আলো নিজেকে আলোকিত করতে হবে।
 
মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বাস্তবায়নের পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের মান সম্পন্ন শিক্ষা প্রদানের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় কতৃপক্ষকে আহ্বান জানান তিনি।
আলোচনা সভার শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশন করে।

ফারইস্ট ইন্টারন্যাশনার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. এম মোজাম্মেল হক এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন কলামিস্ট মুক্তিযোদ্ধা মেজর জেনারেল (অব.) মোহাম্মাদ আলী শিকদার, বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রাস্টি বোর্ডের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান শেখ কবির হোসেন, রেজিস্ট্রার অধ্যক্ষ এম এম নুরুনবী, ফ্যাকাল্টি অব আর্টস ডিন প্রফেসর ড. মাহমুদুল হাসান প্রমুখ।

বাংলাদেশ সময়: ১৪৫৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৩১, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।