ঢাকা, সোমবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২০ মে ২০২৪, ১১ জিলকদ ১৪৪৫

কৃষি

মিধিলি: পটুয়াখালীতে আমন ধানসহ কৃষিতে ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৩৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৭, ২০২৩
মিধিলি: পটুয়াখালীতে আমন ধানসহ কৃষিতে ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা

পটুয়াখালী: ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে পটুয়াখালী জেলার আমন ধানসহ কৃষিতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করেছে কৃষি বিভাগ। বৃহস্পতিবার (১৬ নভেম্বর) ও শুক্রবার (১৭ নভেম্বর) টানা বর্ষণ, ঝড়ো হাওয়া ও মুশলধারে বৃষ্টিতে রোপা-আমন হেলে পড়াসহ পানের বরজেও ক্ষতি হতে পারে।

শুক্রবার (১৭ নভেম্বর) জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় ১৩৭ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে আবহাওয়া অফিস। সকাল নয়টা থেকে দুপুর বারোটা পর্যন্ত তিন ঘণ্টায় ৫৫ দশমিক ছয় মিলিমিটার বৃষ্টি রেকর্ড করা হয়েছে। এদিকে, বর্তমানে প্রতি ঘণ্টায় ৩০ কিলোমিটার গতিতে বায়ু প্রবাহিত হচ্ছে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া অফিসের ইনচার্জ মাহবুবা সুখী।

স্থানীয় কৃষকরা জানায়, মাঠে এখন আমন ধান রয়েছে। এমন সময় ঘূর্ণিঝড়টা হলো, যখন ধানের ফুলে মাঠ ভরা। এই সময়ে বাড়তি বৃষ্টি ও ঝড়ো হাওয়ায় ধান পানিতে হেলে পড়বে। আর এতে করে ধানের ব্যাপক ক্ষতি হবে। কারণ, বেশি বৃষ্টি হলে ফসলি মাঠে পানি জমে যাবে। তারপর আমাদের আর কিছু করার থাকবে না।

পটুয়াখালী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর জানিয়েছে, জেলার আট উপজেলার প্রায় অনেক এলাকায় রোপণ করা আমন ও ইরি হেলে পড়ার খবর পাওয়া গেছে। বৃষ্টি ও ঝড়ো হাওয়া বাড়লে শীতের সবজির ক্ষেতও ক্ষতির মুখে পড়তে পারে। জেলায় এবার লক্ষ্যমাত্রার থেকেও বেশি আমন চাষ হয়েছে। বর্তমানে মাঠে এক লাখ ৯১ হাজার ১১৯ হেক্টর জমিতে আমন ধান আছে। তার মধ্যে পাঁচ ভাগ ধান কৃষক কেটে ঘরে তুলছে। আর ২০ ভাগ ধান আধা-পাকা অবস্থায় আছে। এছাড়া ৭৫ ভাগ ধান ফুল অবস্থায় আছে, যা ঝড় হাওয়া বেশি হলে চিটায় পরিণত হতে পারে।

পটুয়াখালী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. নজরুল ইসলাম বলেন, আরও বৃষ্টি ও বাতাস বাড়লে ধানের ফুল ঝরে গিয়ে ধান চিটা হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এতে কৃষকের উৎপাদন ক্ষতিগ্রস্ত হবে। আমরা তথ্য সংগ্রহ করেছি, আমাদের কর্মকর্তারা মাঠে আছে, দ্রুত একটি ক্ষয়ক্ষতির পরিসংখ্যান দিতে পারব।

তিনি আরও বলেন, ধান ছাড়াও পানের বরজের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হচ্ছে, যা এখনই দৃশ্যমান হচ্ছে না।

বাংলাদেশ সময়: ২১৩৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৭, ২০২৩
এসআইএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।