ঢাকা, শনিবার, ৮ মাঘ ১৪২৮, ২২ জানুয়ারি ২০২২, ১৮ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

পশ্চিমবঙ্গে পুলিশের গুলিতে ৪ কৃষক আহত, গ্রেপ্তার ৫

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১২৬ ঘণ্টা, জুলাই ১০, ২০১১

কলকাতা: নয়া সরকারের আমলে প্রথম গুলি চালানোর ঘটনা ঘটলো শনিবার। এদিন দুপরে পুলিশের গুলিতে মারাত্বক আহত হয়েছেন ৪ জন কৃষক।



বেশ কয়েকদিন ধরেই সিপিএমের নেতারা অভিযোগ করে আসছিলেন সাবেক বামফ্রন্ট আমলে সরকারি খাস জমিতে পাট্টা পাওয়া কৃষকদের উচ্ছেদ করার চক্রান্ত চলছে রাজ্য জুড়ে।

সেরকমই একটি ঘটনা এদিন ঘটে। উত্তর ২৪ পরগনার সুন্দরবন সংলগ্ন হাড়োয়া থানার গোপালপুর গ্রামে পাট্টা পাওয়া কৃষকদের উচ্ছেদ করতে আসে পুলিশ। এই সময় পুলিশের সঙ্গে ব্যাপক সংর্ঘষ হয় কৃষকদের। পুড়ে যায় বেশ কয়েকটি ঘর।

পুলিশ মারমুখি কৃষকদের ছত্রভঙ্গ করতে গুলি চালায়। গুলিতে মারাত্মক আহত হয়ে ঘটনাস্থলে লুটিয়ে পড়েন ৪ জন কৃষক। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৫ কৃষককে গ্রেপ্তার করে।

রাজ্যের মন্ত্রী ও উত্তর ২৪ পরগনার তৃণমুল নেতা জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক এই ঘটনা নিয়ে সাংবাদিকদের বলেন, ‘    সিপিএমের হার্মাদরা তৃণমুলের ওপর আক্রমণ করে। তখন পুলিশ গুলি চালায়। ’

এই ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে সাবেক বামফ্রন্ট মন্ত্রী ও সিপিএম নেতা গৌতম দেব বলেন, ‘এতো বড় একটা ঘটনা ঘটলো, এখন পর্যন্ত মুখ্যমন্ত্রী, জেলাশাসক, পুলিশ সুপার কোনো কথা বললো না। বিষয়টা এরা কী ধামা চাপা দিতে চাইছে?’

রাজ্যের নকশালপন্থী দল সিপিআইএম লিবারেশনের পক্ষ থেকে কার্তিক পাল এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে বলেছেন, ‘সরকার গুলি চালিয়ে অন্যায় করেছে। পাট্টাদারদের উচ্ছেদের পরিকল্পনা চলছে। ’

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আহত কৃষকদের মধ্যে ২ জন আদিবাসী, ১ জন তফসীলি ও  ১ জন মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষ। এদেরকে হাসপাতালে নিয়ে গেছে সিপিএম নেতৃত্ব।

ভারতীয় সময়: ২১২০ ঘন্টা, জুলাই ০৯, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa