ঢাকা, শুক্রবার, ২২ আশ্বিন ১৪২৯, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

জাতীয়

দুই বছর একত্রে বসবাস, বিয়ে না করায় ধর্ষণের মামলা

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৫৬ ঘণ্টা, আগস্ট ১৪, ২০২২
দুই বছর একত্রে বসবাস, বিয়ে না করায় ধর্ষণের মামলা প্রতীকী ছবি

নারায়ণগঞ্জ: প্রেম, দুই বছর যাবত একত্রে বসবাস ও শারিরীক সম্পর্কের পর বিয়ে না করায় প্রেমিকের বিরুদ্ধে ধর্ষণের মামলা করেছেন প্রেমিকা। রোববার (১৪ আগস্ট) নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লা মডেল থানায় ওই তরুণী এই মামলা করেন।

মামলায় উল্লেখ্ করা হয়েছে, বাদী মুসলমান তিনি চাঁদনী হাউজিংয়ে ভাড়া বাসায় বসবাস ও ফতুল্লার বিসিক এক নম্বর গেটের একটি গার্মেন্টসে চাকরি করেন। একই গার্মেন্টসে চাকরি করতেন সুমন চন্দ্র ভূঁইয়া। তিনি সনাতন পরিবারের সন্তান। ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সরাইল থানার মলাইশের বিদ্যাসগর ভূঁইয়ার ছেলে।

মামলায় আরও উল্লেখ করা হয়, একই প্রতিষ্ঠানে চাকরির সুবাদে ২০২২ সালের ডিসেম্বর মাস থেকে তার সঙ্গে বাদীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এর সূত্র ধরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ২০২২ সালের ২৭ জুলাই পর্যন্ত দুই বছর আসামি চাঁদনী হাউজিংয়ে বাদীর বাসায় একসঙ্গে স্বামী-স্ত্রীর মতো বসবাস করেন। এমনকি তিনি বাদীর মাসিক বেতন ১৫ হাজার টাকাও অভিযুক্ত নিয়ে যেতেন। সম্প্রতি বাদী বিয়ের জন্য চাপ দিলে সুমন চন্দ্র কালক্ষেপণ করতে থাকেন। এ অবস্থায় বাদী বাসায় না থাকার সুযোগে চলতি মাসের ২ তারিখে অভিযুক্ত তিনি ঘরে থাকা ১ লাখ ৩০ হাজার টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়ে যান।

এ বিষয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা (আইও) ফতুল্লা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোস্তফা কামাল জানান, মামলা হয়েছে। আসামিকে গ্রেফতারের চেষ্টা করা হচ্ছে। আর বাদীকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৫৬ ঘণ্টা, আগস্ট ১৪, ২০২২
এমআরপি/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa