ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ চৈত্র ১৪৩০, ১২ এপ্রিল ২০২৪, ০২ শাওয়াল ১৪৪৫

রাজনীতি

সংসদে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

উন্নয়ন বন্ধ করতে বিএনপি ক্ষমতায় আসতে চায়

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৭ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১, ২০২৩
উন্নয়ন বন্ধ করতে বিএনপি ক্ষমতায় আসতে চায়

ঢাকা: আওয়ামী লীগ সরকার দেশে যে উন্নয়ন করেছে তা বন্ধ এবং মানুষের মধ্যে হাহাকার সৃষ্টির জন্য বিএনপি ক্ষমতায় আসতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন স্থানীয় সরকার, পল্লি উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী তাজুল ইসলাম। বুধবার (১ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় সংসদে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন।

এ সময় ডেপুটি স্পিকার শামুসল হক টুকুর সভাপতিত্ব অধিবেশনে বর্তমান সরকারের উন্নয়ন তুলে ধরে তাজুল ইসলাম বলেন, আপনারা সমালোচনা করেন, আমাদের সমালোচনা করেন, কিন্তু আপনারা এক ফোঁটা বিদ্যুুৎ উৎপাদন করতে পারেনি। মানুষকে দরিদ্র করেছেন, কমিউনিটি ক্লিনিক বন্ধ করেছেন। এখন উন্নয়ন বন্ধ করার জন্য, মানুষের মধ্যে হাহাকার সৃষ্টি করার জন্য তারা ক্ষমতায় আসতে চায়।

তিনি বলেন, অনেক উন্নয়ন হয়েছে, এই উন্নয়নের যাত্রা অব্যাহত থাকুক এটা আমরা চাই। আমি একজন মন্ত্রী বা এমপি হিসেবে নয়, আওয়ামী লীগার হিসেবে নয়, একজন সাধারণ নাগরিক হিসেবে আমি মনে করি এদেশের মানুষের ভাগ্যের  উন্নতির জন্য আওয়ামী লীগের কোনো বিকল্প নেই। বঙ্গবন্ধুর দর্শনের কোনো বিকল্প নেই, শেখ হাসিনার কোনো বিকল্প নেই।

মন্ত্রী বলেন, এখন বিএনপি এবং ওনাদের শরিকরা বুঝে ফেলেছে যে আর ক্ষমতায় যেতে পারবে না। ওনারা বলেন সরকার তাদের সভা করতে দেয় না, সভা করতে ওনাদের কে নিষেধ করেছে? নিজেরা মারামারি-পিটাপিটি করে, সমস্যা সৃষ্টি করে এরপরে সভা সমাবেশে করেছে, সব কিছু করে দেখেছে ক্ষমতায় যেতে পারবে না। এখন তত্ত্বাবধায়ক সরকার বলা বন্ধ করেছে, বন্ধ করে ওনাদের শরিকরা বলছে যে অনির্বাচিত, অসাংবিধানিক সরকার যদি দুই তিন বছর ক্ষমতায় থাকে তাহলে কোনো অসুবিধা নেই। অসাংবিধানিক সরকার এটা চিন্তা করা কোনো সুস্থ মানুষের কাজ হতে পারে না। যারা এ কথা বলে তারা রাষ্ট্রদ্রোহিতার কাজ করে। আমি মনে করি রাষ্ট্রকে যেভাবে দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করতে হবে, পালন করা উচিত।  

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৭ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১, ২০২৩
এসকে/এমএমজেড

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।