ঢাকা, রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ মে ২০২৪, ১০ জিলকদ ১৪৪৫

আইন ও আদালত

কুমিল্লায় অটোরিকশাচালক হত্যায় দুজনের মৃত্যুদণ্ড

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৮৪১ ঘণ্টা, এপ্রিল ২১, ২০২৪
কুমিল্লায় অটোরিকশাচালক হত্যায় দুজনের মৃত্যুদণ্ড

কুমিল্লা: কুমিল্লায় পরকীয়ার জেরে সিএনজি চালিত অটোরিকশার চালক হত্যার ঘটনায় দুজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত।  

রোববার (২১ এপ্রিল) কুমিল্লার অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-৪ এর বিচারক মো. জাহাঙ্গীর হোসেন এ রায় দেন।

 

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন- চৌদ্দগ্রামের শুভপুর গ্রামের সোলেমান হক পাগলার ছেলে গিয়াস উদ্দিন (২৩) ও নাঙ্গলকোটের গন্দাচি গ্রামের আলা মিয়ার ছেলে অলি উল্লাহ (৩০)। রায় ঘোষণার সময় গিয়াস উদ্দিন উপস্থিত থাকলেও অপরজন পলাতক।  

রাষ্ট্রপক্ষের অতিরিক্ত কৌঁসুলি মুজিবুর রহমান বাহার জানান, ২০১৭ সালের ১৮ জুন চৌদ্দগ্রাম উপজেলার শুভপুর গ্রামের জয়নাল আবেদীনের ছেলে রাসেলকে অপহরণ করেন অজ্ঞাত ব্যক্তিরা। পরে তারা এক লাখ টাকা দাবি করেন। ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দিয়েও ছেলেকে না পেয়ে অপহরণ মামলা করেন জয়নাল। পরে চৌদ্দগ্রামের চিওড়া রাস্তার মাথায় একটি মরদেহ উদ্ধার হলে জয়নাল তার ছেলের বলে শনাক্ত করেন। এ ঘটনায় মামলা করেন জয়নাল। পুলিশ তদন্ত করে শুভপুর এলাকার একরামুল হক পাগলা, গিয়াস উদ্দিন, শাহিন, নাঙ্গলকোটের অলি উল্লাহ ও আসমা আক্তার সাথীকে অভিযুক্ত করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করে।  

আদালতে আসামিরা স্বীকার করেন যে, আসমা আক্তার সাথী সম্পর্কে রাসেলের ভাবি। তার সঙ্গে রাসেলের পরকীয়া ছিল। এদিকে গিয়াস উদ্দিনের সঙ্গেও ছিল সাথীর পরকীয়া। এর জেরে গিয়াস উদ্দিন, একরামুল হক এবং অলিউল্লাহকে নিয়ে পরিকল্পিতভাবে রাসেলকে হত্যা করেন।

আসামিদের মধ্যে একরামুল হক পাগলার মৃত্যু হলে তার নাম মামলা থেকে বাদ দেওয়া হয়। এছাড়া ঘটনার সময় বয়স ১৮ বছরের কম থাকায় সাথীর মামলা শিশু আদালতে চলছে। শাহিনকে অব্যাহতি দেন আদালত। সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে বাকি দুজনকে মৃত্যুদণ্ড দেন আদালত।

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৭ ঘণ্টা, এপ্রিল ২১, ২০২৪
এসআই
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।