ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

প্রবাসে বাংলাদেশ

শ্রীলঙ্কায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৫৬ ঘণ্টা, মার্চ ১৮, ২০২১
শ্রীলঙ্কায় বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন

ঢাকা: যথাযোগ্য মর্যাদা এবং বিপুল উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে শ্রীলঙ্কায় বাংলাদেশ হাইকমিশনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস-২০২১ উদযাপন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৮ মার্চ) এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, হাইকমিশন প্রাঙ্গণে ভারপ্রাপ্ত হাইকমিশনারের জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে দিবসের সূচনা করা হয়।

এরপর সমবেত সবাই জাতির জনক প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ অর্পণ করেন। পুষ্পার্ঘ অর্পণ শেষে সবাই দাঁড়িয়ে জাতির জনক প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করেন।

চলমান করোনা মহামারির সঙ্কট বিবেচনায় শ্রীলঙ্কার স্থানীয় কর্তৃপক্ষের স্বাস্থ্য নির্দেশাবলী অনুসরণপূর্বক দিবসের পুরো অনুষ্ঠানমালা বিশেষ আঙ্গিকে সাজানো এবং তা সুসম্পন্ন করা হয়। দিবসটি উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীর দেওয়া বাণী পাঠ করেন যথাক্রমে ভারপ্রাপ্ত হাইকমিশনার, প্রতিরক্ষা উপদেষ্টা কমোডর এম শফিউল বারী, দূতাবাস কর্মকর্তা আবুল বাশার এবং মিজ সায়ুরি জয়াবধনা।

অনুষ্ঠানে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত এবং জাতির জনকের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া করা হয় এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে পরিচালিত বাংলাদেশের সার্বিক কল্যাণ ও মঙ্গল কামনায় মোনাজাত পরিচালনা করেন হাইকমিশনের কর্মকর্তা মো. ওমর ফারুখ।

এরপর দিবসটির তাৎপর্য ও গুরুত্বের ওপর একটি আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। বক্তারা বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক আদর্শ ও সম্মোহনী ব্যক্তিত্বের গুণাবলি তুলে ধরেন এবং তার জন্মশতবার্ষিকীর এ যুগসন্ধিক্ষণে বাংলাদেশের অভূতপূর্ব অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়নের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা করেন।

ভারপ্রাপ্ত হাইকমিশনার হযরত আলী খান সমাপনী বক্তব্যে বঙ্গবন্ধুর দক্ষ ও যুগোপযোগী পররাষ্ট্রনীতির বিভিন্ন দিক নিয়ে বিশ্লেষণ করেন। তিনি বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত ‘সোনার বাংলা’ বিনির্মাণে সবাইকে দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে সর্বাত্মক সহযোগিতা আহ্বান জানান।

সন্ধ্যায় অনুষ্ঠানের শুরুতে বঙ্গবন্ধু ও দিবসটির ওপর নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন করা হয়। এরপর কলম্বোর ব্রিটিশ স্কুলের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী বাদরাত বৃন্ত খান ‘বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবন ও আদর্শ’ শিরোনামে একটি বিশ্লেষণধর্মী প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন। অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধুর ওপর কবিতা ও ছড়া পাঠ এবং গানের আসর আয়োজন করা হয় এবং ‘বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শিরোনামে সপ্তাহব্যাপী চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এ সব আয়োজনে অংশ নেন শ্রীলঙ্কা ও বাংলাদেশের শিশুকিশোর এবং দূতাবাস পরিবারের সদস্য ইসরাত জাহান নূর, ওমর শেফা, মাদিহা মুদাসসার, মারজিয়া রহমান, মুনজারিন রহমান, অনুরাধা মোবিন, মনিরুল ইসলাম, শাহরিয়ার ইসলাম, দেভি জানাথ ডি সিল্ভা, মুসলিমা আকতার, ফারহা তাসনিম, আমারাহ ইসলাম, তাসমিহা মুনতারিন, আলীশা ইসলাম, মৃন্ময় খান, শৈমী সুলতানা শিমু, মিস রিফাত নাজনী্ন, শেখ মো. সামাদ প্রমুখ।

জাতির জনকের জন্মশতবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবসের এ আয়োজনে হাইকমিশনের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও তাদের পরিবারের সদস্যরা এবং উল্লেখযোগ্য সংখ্যক শ্রীলঙ্কান শিশু-কিশোর এবং শ্রীলঙ্কার তরুণ চিত্রকর চাথুরঙ্গ বিয়াগামা অংশ নেন।

অনুষ্ঠানে চিত্রাঙ্কন ও রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ও অংশগ্রহণকারী শিশু-কিশোরদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন অনুষ্ঠানের অতিথি মাডাম আলিয়া নাজমা নূর, ডা. ফারহানা বারী ও সাবিহা রহমান খান।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৪৫ ঘণ্টা, মার্চ ১৮, ২০২১
এসই/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa