ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আদালত

আইনজীবী হত্যা: মা-স্ত্রীসহ মসজিদের ইমাম রিমান্ডে

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০২৫ ঘণ্টা, মে ২৮, ২০১৯
আইনজীবী হত্যা: মা-স্ত্রীসহ মসজিদের ইমাম রিমান্ডে

মৌলভীবাজার: মৌলভীবাজারের বড়লেখায় আইনজীবী আবিদা সুলতানা হত্যা মামলায়  মসজিদের ইমাম তানভীর আহমদকে দশ দিনের এবং তার স্ত্রী ও মাকে আট দিনের রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২৮ মে) দুপুরে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জসীম উদ্দিনের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বড়লেখার জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম হরিদাস তাদের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এরআগে সোমবার (২৭ মে) রাতে বড়লেখা থানায় নিহতের স্বামী শরীফুল ইসলাম বাদী হয়ে আবিদা সুলতানার পৈতৃক বাড়িতে থাকা ভাড়াটিয়া মাধবগুল মসজিদের ইমাম তানভীরকে প্রধান আসামি এবং স্ত্রী হালিমা, মা নেহার ও ভাই আফসার আলমকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

এ ঘটনার পর তানভীরের মা ও স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করে। পরে দায়ের করা মামলায় তাদের গ্রেফতার দেখিয়ে রিমান্ড আবেদন করলে আদালত তাদের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। তবে মামলার অপর আসামি আফসার আলম এখনো পলাতক রয়েছেন।

বড়লেখা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইয়াছিনুল হক বাংলানিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

রোববার (২৬ মে) রাত আনুমানিক আড়াইটার দিকে উপজেলার দক্ষিণভাগ উত্তর ইউপির মাধবগুল গ্রামের মৃত আব্দুল কাইয়ুমের মেয়ে মৌলভীবাজার জেলা আইনজীবী সমিতির সদস্য আবিদা সুলতানার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। রোববার বেলা ১২টা থেকে রাত ৮টার মধ্যে যেকোনো সময় তাকে হত্যা করে ঘরে বন্দি করে রাখা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এদিকে ঘটনার পর আবিদার পৈতৃক বাড়িতে থাকা ভাড়াটিয়া তানভীর আহমদ (৩০) পালিয়ে যান। তিনি স্থানীয় একটি মসজিদে ইমামতি করতেন। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে সোমবার (২৭ মে) দুপুরে শ্রীমঙ্গল উপজেলার কালাপুর ইউপির বরুনা এলাকা থেকে তানভীরকে আটক করে শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশ। এরআগে তানভীরের মা ও স্ত্রীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করে পুলিশ।  

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৫ ঘণ্টা, মে ২৮, ২০১৯
জিপি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa