ঢাকা, শুক্রবার, ২০ মাঘ ১৪২৯, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১১ রজব ১৪৪৪

বিনোদন

কনসার্ট ফর বাংলাদেশ’র প্রামাণ্যচিত্রে আসাদুজ্জামান নূরের কণ্ঠ

বিনোদন ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২২৫ ঘণ্টা, এপ্রিল ১, ২০২১
কনসার্ট ফর বাংলাদেশ’র প্রামাণ্যচিত্রে আসাদুজ্জামান নূরের কণ্ঠ আসাদুজ্জামান নূর

'দ্য কনসার্ট ফর বাংলাদেশ'-এর উপর নির্মাণাধীন প্রামাণ্যচিত্র 'একটি দেশের জন্যে গান'-এ কণ্ঠ দিয়েছেন খ্যাতিমান অভিনেতা ও রাজনীতিবিদ আসাদুজ্জামান নূর।  

নিউইয়র্ক থেকে 'ফ্রেন্ডস অব ফ্রিডম'-এর ব্যানারে এই প্রামাণ্যচিত্রটি নির্মিত হচ্ছে।

ডকুমেন্টারিটি পরিচালনা করছেন লেখক ও সাংবাদিক শামীম আল আমিন। পরিচালনার পাশাপাশি এর স্ক্রিপ্টও লিখেছেন শামীম আল আমিন।  

মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) ঢাকার ইস্কাটনের ধ্বনিচিত্র স্টুডিওতে প্রামাণ্যচিত্রটির সম্পূর্ণ ধারাবর্ণনায় কণ্ঠ দেন আসাদুজ্জামান নূর। বাংলা ভাষায় নির্মিত এই প্রামাণ্যচিত্রে ইংরেজি সাবটাইটেল উঠবে। এছাড়াও কনসার্ট সম্পর্কিত দৃশ্য, সাক্ষাৎকার ও দৃষ্টিনন্দন গ্রাফিক্সের কাজ থাকবে।  

নির্মাতা জানিয়েছেন, ‘মহান মুক্তিযুদ্ধের সুবর্ণজয়ন্তীর এই বছরে ঐতিহাসিক সেই কনসার্টেরও ৫০ বছর পূর্ণ হতে চলেছে। এমন একটি অসাধারণ সময়ে প্রামাণ্যচিত্রটির কাজ প্রায় শেষের দিকে। ’

শামীম আল আমিন বলেন, ‘ঐতিহাসিক কনসার্টকে ঘিরে এমন উদ্যোগে আসাদুজ্জামান নূরের মতো একজন কিংবদন্তিতুল্য অভিনেতা ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বের অংশগ্রহণ কাজটিকে অনেক সহজ ও হৃদয়গ্রাহী করে তুলবে। '

তিনি আরও বলেন, ‘অন্য অনেকের মতো আমারও ছেলেবেলার নায়ক আসাদুজ্জামান নূর। যখন দ্য কনসার্ট ফর বাংলাদেশ নিয়ে প্রামাণ্যচিত্র নির্মাণের কথা ভেবেছি, তখন থেকেই ভাবনাজুড়ে ছিল ধারাবর্ণনার কণ্ঠটি হওয়া চাই তার। তিনি এই কাজে অবশ্যই সঙ্গে থাকার কথা বলেছিলেন। আমরা অপেক্ষা করেছি। অবশেষে তার দরাজ কণ্ঠে মূর্ত হয়ে উঠলো দ্য কনসার্ট ফর বাংলাদেশ। ’

কণ্ঠধারণসহ অন্যান্য কাজে সহায়তা দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহযোগি অধ্যাপক ড. সাজ্জাদ বকুল এবং একাত্তর টেলিভিশনের বিশেষ প্রতিনিধি পারভেজ রেজা। এই দু'জনের অবদানের কথা স্মরণ করেন নির্মাতা।  

নির্মাতা জানান, 'এতে সাক্ষাৎকার দিয়েছেন সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত, কনসার্টে অংশ নেওয়া ওস্তাদ আলী আকবর খাঁ'র বড়ছেলে ওস্তাদ আশীষ খাঁ, আমেরিকান চলচ্চিত্র নির্মাতা লিয়ার লেভিন, ইউনিভার্সিটি অব সাউথ অ্যালাবামার ডিপার্টমেন্ট অব কমিউনিকেশনের এমিরেটাস প্রফেসর জেমস অকোয়েন, খ্যাতিমান লেখক জ্যোতিপ্রকাশ দত্ত, কনসার্টের প্রত্যক্ষদর্শী লিন্ডা অ্যান্তোনোসি, কাজী সাহিদ হাসান এবং অভীক দাশ গুপ্ত। ' 

উল্লেখ্য, মুক্তিযুদ্ধে বাংলাদেশের মানুষের পাশে দাঁড়ানোর অসামান্য এক কীর্তি 'দ্য কনসার্ট ফর বাংলাদেশ। ' পৃথিবীর বুকে সেটাই ছিল প্রথম চ্যারিটি কনসার্ট। যার উদ্যোক্তা ছিলেন একসময়ের সাড়াজাগানো ব্যান্ডদল দ্য বিটলস-এর গুরুত্বপূর্ণ সদস্য জর্জ হ্যারিসন এবং ভারতীয় উপমহাদেশের কিংবদন্তি সেতারবাদক রবি শঙ্কর। সেই আয়োজনে যুক্ত হয়েছিলেন আরও অনেক খ্যাতিমান শিল্পী।

যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের মেডিসন স্কয়ার গার্ডেনের সেই কনসার্টটি নানা কারণেই ইতিহাসের অনবদ্য অংশ। ১৯৭১ সালের ১ আগস্ট, রোববার অনুষ্ঠিত কনসার্টের দুটি শো আজও বাংলাদেশের মানুষের কাছে ভীষণ আবেগের। বিশ্ববাসীর জন্যে এখনও তা মানবিকতার উজ্জ্বল উদাহরণ।

বাংলাদেশ সময়: ১২২০ ঘণ্টা, মার্চ ০১, ২০২১
এমকেআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa