ঢাকা, সোমবার, ২ বৈশাখ ১৪৩১, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৫ শাওয়াল ১৪৪৫

লাইফস্টাইল

মানসিক অবসাদ থেকে বাঁচতে এড়িয়ে চলুন ৬ বিষয়

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১৪৮ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০২৪
মানসিক অবসাদ থেকে বাঁচতে এড়িয়ে চলুন ৬ বিষয়

জীবনের গতি বেড়েছে। এরসঙ্গে তাল মেলাতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছে মানুষ।

গতির এই ইঁদুর দৌড়ে পিছিয়ে পড়ছে জীবন। হারিয়ে যাচ্ছে বেঁচে থাকার আনন্দ। ফলে দিনে দিনে বাড়ছে হতাশা। আর এই হতাশা যে কখন খাল কেটে মানসিক অবসাদকে ডেকে আনছে বোঝা কঠিন। মানসিক অবসাদের এই চোরাবালিতে যদি আপনি আটকে গিয়ে থাকেন তাহলে কয়েকটি ভুল একদমই করবেন না।

১। সমস্যা যতই বিরক্তিকর বা বিড়ম্বনার হোক না কেন তা এড়িয়ে যাবেন না। এগুলো ছায়ার মতো হয়, যত দূরে যাবেন তত বড় হতে থাকবে। সামনে দাঁড়ালেই শেষ। তাই সমস্যা নিয়ে কারও সঙ্গে কথা বলুন।

২। ভালো ঘুম হওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। রাতে ঘুমানোর সময় মোবাইল দেখবেন না। এতে ঘুম ভালো হয় না। তার বদলে বই পড়ুন কিংবা মন শান্ত করার কোনো মিউজিক শুনুন। সকালে ঘুম থেকে ওঠার পর বেশিক্ষণ বিছানায় থাকবেন না। তাতে আকাশ-কুসুম চিন্তার প্রবণতা বাড়ে।

৩। নিজেকে ঘরবন্দি করে ফেলবেন না। মন খারাপ হলে বাইরে ঘুরতে যান। যেখানে ইচ্ছে সেখানে যান। প্রয়োজনে কোনো পার্কে গিয়ে হাঁটতে পারেন কিংবা চায়ের দোকানে গিয়ে চা খেতে পারেন। কিছুক্ষণ পরে হালকা বোধ করবেন।

৪। মন খারাপ করে এমন কোনো খবর, সিনেমা, সিরিয়াল কিংবা ওয়েব সিরিজ দেখবেন না। এতে পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে। বরং এমন কিছু করুন বা দেখুন যাতে মন ভালো হয়।

৫। মানসিক অবসাদে অপরাধ বোধ বেশি করে ঘিরে ধরে। এটা হতে দেবেন না। পৃথিবীর সব কিছুর দায় আপনার নয়। মনে রাখবেন, কেউ পারফেক্ট নয়।

৬। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রিল দেখে বা ভিডিও গেম খেলে সমস্যাকে ভুলে যাওয়ার চেষ্টা করবেন না। তার চেয়ে বিশেষজ্ঞর কাছে গিয়ে মনের কথা খুলে বলুন। দেখবেন অনেকটা হালকা লাগবে।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৭ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০২৪
এসআইএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad