ঢাকা, শনিবার, ৭ মাঘ ১৪২৮, ২২ জানুয়ারি ২০২২, ১৮ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

রাজনীতি

জামাতের ভোট করায় আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে ঝাড়ু মিছিল

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০১১৩ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ৪, ২০২১
জামাতের ভোট করায় আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে ঝাড়ু মিছিল জামাতের ভোট করায় আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে ঝাড়ু মিছিল

পঞ্চগড়: পঞ্চগড়ে তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে জামাতের প্রার্থীর পক্ষে ভোট করার অভিযোগ উঠেছে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি উসমান আলীর বিরুদ্ধে। এই অভিযোগ তুলে তাকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবিতে ঝাড়ু মিছিল করেছেন স্থানীয় আ.লীগ নেতাকর্মীরা।

 

শুক্রবার (০৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় পঞ্চগড়ের হাড়িভাসা ইউনিয়ন বাজারে এই বিক্ষোভ ও ঝাড়ু মিছিল করেন তারা।

জানা যায়, দলীয় সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে গত ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হওয়া তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী মনির হোসেনের বিপক্ষে কাজ করেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি উসমান আলী। তিনি জামাতের স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ সায়েদ নুরে আলমের (অটোরিকশা প্রতীক) পক্ষে কাজ করেন। এই অভিযোগে তাকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবিতে স্থানীয় নেতাকর্মী ও সমর্থকরা ঝাড়ু মিছিল করেন। মিছিলে ইউনিয়নের প্রায় ১ হাজার নেতাকর্মী ও সমর্থকরা অংশ নেন।

ঝাড়ু মিছিলে বিক্ষোভকারীরা বলেন, হাড়িভাসা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি উসমান আলী জামাতের লোক স্বতন্ত্র প্রার্থীর হয়ে নির্বাচন করেন। যার কারণে দলের নাম ক্ষুণ্নসহ গত ২৮ নভেম্বর দলীয় মনোনীত নৌকার প্রার্থী মনির হোসেন হেরে যান। যেহেতু তিনি দলের সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে বিপক্ষ পার্টির নির্বাচন করেছেন তাই তাকে তার পদবী থেকে বহিষ্কার করতে হবে। অতিদ্রুত তাকে দল থেকে বহিষ্কার করা না হলে আগামীতে কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারিও দেন বক্তারা।

এদিকে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মনির হোসেন অভিযোগ করে বাংলানিউজকে বলেন, এবারের নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও প্রিয় দল তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে আমাকে নৌকা প্রতীক দেয়। এই নির্বাচনে আমরা সুন্দরভাবে নির্বাচনী প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছিলাম। কিন্তু ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি উসমান আলী দলীয় সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে জামাতের হয়ে ভোট করেন। আমরা দলকে এগিয়ে নিতে কাজ করেছি, কিন্তু তিনি দলকে ডুবাতে দলের বিপক্ষে গিয়ে কাজ করেন। এতে দলের সুনামও ক্ষুণ্ন হয়েছে। আমরা দ্রুত সভাপতি উসমান আলীকে দল থেকে বহিষ্কারের দাবি জানাচ্ছি।

গত ২৮ নভেম্বরের নির্বাচনে হাড়িভাসা ইউনিয়নে মোহাম্মদ সায়েদ নুরে আলম (অটোরিকশা প্রতীকে) ৫৯৪৭ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মনির হোসেন (নৌকা প্রতীকে) ৪৪৩৬ ভোট পেয়ে হেরে যান।

বাংলাদেশ সময়: ০১০৫ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০৪, ২০২১
এমআরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa