ঢাকা, রবিবার, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

শিল্প-সাহিত্য

হিন্দি উপন্যাসের জন্য প্রথম বুকার পেলেন গীতাঞ্জলি শ্রী

শিল্প-সাহিত্য ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬০৩ ঘণ্টা, মে ২৭, ২০২২
হিন্দি উপন্যাসের জন্য প্রথম বুকার পেলেন গীতাঞ্জলি শ্রী

প্রথমবারের মতো হিন্দি উপন্যাসের জন্য বুকার পুরস্কার পেয়েছেন ভারতীয় লেখক গীতাঞ্জলি শ্রী।

যে উপন্যাসের জন্য এই পুরস্কার তিনি পেলেন তার হিন্দি নাম ‘রেত সমাধি’।

মার্কিন চিত্রকর এবং লেখক ডেইসি রকওয়েল এর ইংরেজি অনুবাদ করেন। বইয়ের নাম দেন ‘টোম্ব অফ স্যান্ড’।

বুকার কমিটি জানিয়েছে, এত উপভোগ্য বই বহুদিন তারা পড়েননি। উপন্যাসটিতে হাসির ছলে গভীর দর্শন তুলে ধরা হয়েছে।

দিল্লির অদূরে উত্তরপ্রদেশে বেড়ে ওঠা লেখিকা উপন্যাসে এক ৮০ বছরের বৃদ্ধার গল্প শুনিয়েছেন। অবসাদে আক্রান্ত সেই বৃদ্ধা স্বামীর মৃত্যুর পর জীবনের দ্বিতীয় অধ্যায় শুরু করেন। সমাজের বেড়াগুলো ভেঙে এক নতুন জীবন উপভোগ করতে শুরু করেন। সেখানে তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু এক সমকামী ব্যক্তি। কূটনৈতিক বাধা ভেঙে তিনি পৌঁছে যান পাকিস্তান। ছোটবেলায় দেশভাগের যন্ত্রণা নিয়ে তাকে দেশ ছেড়ে আসতে হয়েছিল। নতুন করে ফেলে আসা মাটির স্বাদ গ্রহণ করেন তিনি।

গীতাঞ্জলি শ্রী’র বয়স প্রায় ৬০ বছর। তিনি ভারতের দিল্লিতে থাকেন। বুকার পুরস্কার পেয়ে খুব খুশি এই লেখিকা। ধন্যবাদ জানিয়েছেন অনুবাদক ডেইসি রকওয়েলকে। মূলত বইটির জন্য দুই লেখককেই একসঙ্গে পুরস্কার দিয়েছে বুকার কমিটি। ৫০ হাজার পাউন্ড দুই লেখকের মধ্যে ভাগ করে দেওয়া হয়েছে।

অবশ্য এর আগে ভারতীয় বংশোদ্ভূত ভি এস নাইপল, সলমন রুশদি এই পুরস্কার পেয়েছেন। অনীতা দেশাই, অরুন্ধতী রায়, কিরণ দেশাই, অমিতাভ ঘোষেরা এই পুরস্কার পেয়েছেন। তবে তারা পেয়েছেন ইংরেজিতে লেখার জন্য। ভারতীয় ভাষায় লেখা কোনো উপন্যাস ইংরেজিতে অনুদিত হওয়ার পরে তা এই প্রথম বুকার পুরস্কার পেল।  

বাংলাদেশ সময়: ১৬০০ ঘণ্টা, মে ২৭, ২০২২
এনএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa