ঢাকা, রবিবার, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১৯ মে ২০২৪, ১০ জিলকদ ১৪৪৫

জাতীয়

মুগদার প্রধান সড়ক প্রশস্তে ২য় দিনের মতো ডিএসসিসির উচ্ছেদ অভিযান

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১১৬ ঘণ্টা, এপ্রিল ২২, ২০২৪
মুগদার প্রধান সড়ক প্রশস্তে ২য় দিনের মতো ডিএসসিসির উচ্ছেদ অভিযান

ঢাকা: রাজধানীর মুগদার প্রধান সড়ক বিশ্বরোড থেকে মান্ডার হায়দার আলী বিদ্যালয় পর্যন্ত সড়ক সম্প্রসারণের লক্ষ্যে দ্বিতীয় দিনের মতো উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)।  

সোমবার (২২ এপ্রিল) ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ মুনিরুজ্জামান এবং নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জাহাঙ্গীর আলমের নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়।

 

ড্যাপে চিহ্নিত নকশা অনুযায়ী মুগদার প্রধান সড়ক বিশ্বরোড থেকে শুরু করে মান্ডার হায়দার আলী বিদ্যালয় পর্যন্ত সড়ককে ৫০ ফুটে উন্নীত করতে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন ও রাজউকের যৌথ উদ্যোগে এ কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। রোববার (২১ এপ্রিল) থেকে শুরু হওয়া এ অভিযান আজও পরিচালনা করা হয়।  

অভিযান প্রসঙ্গে করপোরেশনের সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান বলেন, মুগদার প্রধান সড়ক বিশ্বরোড থেকে হায়দার আলী বিদ্যালয় পর্যন্ত বিদ্যমান সড়ককে ড্যাপের নকশা অনুযায়ী ৫০ ফুট প্রশস্ত করার লক্ষ্যে সড়কের উভয় পাশের স্থাপনাগুলো চিহ্নিত করা হয়েছে। সে আলোকে ভবন মালিকদের নোটিশ দেওয়া হয়েছে। আমরা স্থাপনাগুলো সরিয়ে নিতে তাদের অনুরোধ করেছি। সে পরিপ্রেক্ষিতে সড়ক প্রশস্ত করার মাধ্যমে এলাকার উন্নয়নের স্বার্থে প্রায় সব ভবন মালিকরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে তাদের স্থাপনাগুলো সরিয়ে নিচ্ছেন।  

উল্লেখ যে, বর্তমানে সড়কের প্রশস্ততা রয়েছে গড়ে ১৭ ফুট। সড়কের উভয় পাশে ৫ ফুট করে ১০ ফুট পথচারীদের হাঁটার পথ (ফুটপাত) ও দুই সারির (ডাবল লেনের) ৪০ ফুট মূল সড়ক সৃষ্টি করার লক্ষ্যে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।  

সে লক্ষ্যে ভবন মালিকদের রাজউক থেকে চারবার নোটিশ দেওয়া হয়। সর্বশেষ গত বৃহস্পতিবার মাইকিং করে রোববার থেকে উচ্ছেদ অভিযান শুরু করা হয়েছে।

আজকের অভিযানে অন্যদের মধ্যে স্থানীয় কাউন্সিলর মোহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম ভাট্টি উপস্থিত ছিলেন।  

বাংলাদেশ সময়: ২১১৫ ঘণ্টা, এপ্রিল ২২, ২০২৪
এইচএমএস/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।