ঢাকা, শুক্রবার, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

বইমেলা

বইমেলায়ও সাকিবের বাজিমাত!

আসাদ জামান, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫০২ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৫
বইমেলায়ও সাকিবের বাজিমাত!

বইমেলা থেকে: ‘সাইমন বার্নস তার ‘বুক অব হিরোস’ বইয়ে লিখেছেন, হিরোরা না থাকলে খেলাধুলা ব্যাপারটা আমাদের এভাবে নিয়ন্ত্রিত করতে পারত না; খেলাধুলার জনপ্রিয়তার স্বার্থেই হিরোদের উপস্থিতি জরুরি।
 
শচীন টেন্ডুলকার প্রসঙ্গে লিখতে গিয়ে সমবিত বাল আরেক ধাপ এগিয়ে বলেছেন, শুধু খেলাধুলার জন্য নয়, জীবনের জন্য হিরোদের প্রয়োজন।


 
বাঙালি জাতি হিসেবে আমাদের সম্পর্কে এই কথার চেয়ে সত্যি আর কী হতে পারে! মহান মুক্তিযুদ্ধের পর আমাদের জীবনে আর কোনো নায়ক আসেনি। কখনো ফুটবলে, কখনো ক্রিকেটে, কখনো পর্দায় আমরা নায়কের সন্ধান করেছি। যে নায়ক এ সম্যসা জর্জরিত বাস্তব জীবন ভুলিয়ে আমাদের স্বপ্ন দেখাতে পারবেন। অবশেষে সাহস করে বলা যায়, সাকিব আল হাসান আমাদের সেই নায়ক হয়ে উঠতে পেরেছেন।
 
কীভাবে কবে সাকিব নায়ক হয়ে উঠলেন? সাবিক এমন কেন? সাকিব কেন আমার আপনার মতো নয়?’ বড় সরল প্রশ্নগুলোর জটিল উত্তর খোঁজা হয়েছে ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইজুড়ে। বইটির ফ্লাপে লেখক বই সম্পর্কে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন এভাবেই।
 
বিশ্ব ক্রিকেটের তিন ফরম্যাটে নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে নিয়ে লেখা বরেণ্য ক্রীড়া সাংবাদিক দেবব্রত মুখোপাধ্যায়’র লেখা এই বইটিই এবারের মেলা বাজিমাত করে চলছে।
 
অমর একুশে গ্রন্থমেলার দ্বিতীয় দিন (২ ফেব্রুয়ারি) দেশের ঐতিহ্যবাহী প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান ‘ঐতিহ্য’ ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইটি মেলায় আনে। মঙ্গলবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) মেলার ১৭তম দিন পর্যন্ত ঐতিহ্য’র বেস্ট সেলার (সর্বাধিক বিক্রিত) বইয়ের শীর্ষ স্থান ধরে রেখেছে এটি।
 
মঙ্গলবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ঐতিহ্য’র স্টলে গিয়ে দেখা যায় ক্রিড়ামোদী তো বটেই বই পড়ে যারা রাসাস্বদন করতে চান তাদের অনেকেই ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইটি কিনছেন। এদেরই একজন রবিউল ইসলাম।
 
একটি বেসরকারি কলেজের তরুণ এই শিক্ষক বাংলানিউজকে বলেন, কিছু কিছু মানুষের জন্ম হয় ইতিহাস সৃষ্টির জন্য। তারা যেদিকে যান, সেদিকে ঘোরে ইতিহাসের মোড়। যেখানে হাত দেন সেখানেই ফলে সোনা। এদেরই একজন সাকিব আল হাসান। তার সম্পর্কে জানার আগ্রহ থেকে বইটি কেনা।
 
বিশ্বের নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান ব্যাট-বল হাতে মাঠ কাঁপান। তাকে নিয়ে লেখা ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইটি অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০১৫ ‘কাঁপাবে’- এমনটিই বিশ্বাস ঢাকা রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র কৌশিক ইমরোজের।
 
তিনি বলেন, ১৮ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে ৯টায় এবারের বিশ্বকাপ ক্রিকেটে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ। আশা করছি, সাকিবের অলরাউন্ড পারফরমেন্সে বাংলাদেশ জিতবে। বাংলাদেশ দলের প্রতি শুভকামনার প্রতীক হিসেবে সাকিবকে নিয়ে লেখা বইটি কিনলাম।
 
বইটির বেচা-কেনা সম্পর্কে জানতে চাইলে ঐতিহ্য’র নির্বাহী পরিচালক আমজাদ হোসেন কাজল বাংলানিউজকে বলেন, এবারের বইমেলায় এখন পর্যন্ত সর্বাধিক বিক্রিত বইয়ের তালিকায় ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইটি শীর্ষে রয়েছে। দেখা যাক শেষ পর্যন্ত কোথায় গিয়ে দাঁড়ায়।
 
তবে এখন পর্যন্ত কতগুলো কপি বিক্রি হয়েছে সে সম্পর্কে কিছু বলতে রাজি নন এতিহ্য’র এই কর্মকর্তা। তিনি বলেন, সাধারণত মেলা চলাকালীন বিক্রিত বইয়ের সংখ্যা আমরা বলি না। মেলার পরে এটি বলা যাবে।  
 
এদিকে মেলার অন্যসব স্টল ও প্যাভিলিয়নে বিখ্যাত বা সদ্য প্রয়াত লেখকদের পোস্টার টাঙানো থাকলেও ঐতিহ্য’র স্টলে শোভা পাচ্ছে ‘সাকিব আল হাসান: আপন চোখে ভিন্ন চোখে’ বইয়ের কাচের ফ্রেমে বাঁধানো প্রচ্ছদ।
 
আগে থেকে কেউ যদি বইটির খবর না জেনে থাকেন, তাহলে তার কাছে মনে হতেই পারে বই লিখে লেখক বনে গেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেটে প্রাণভ্রমোরা সাকিব আল হাসান। কারণ, বিখ্যাত কোনো লেখকের ছবি ছাড়া প্রসিদ্ধ কোনো স্টলে এ ধরনের আলোচিত্র স্থান পাওয়ার নজির বিরল।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৫০৩ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০১৫

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa