ঢাকা, সোমবার, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ২৮ নভেম্বর ২০২২, ০৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

ভারত

দল-মন্ত্রিত্ব আগেই গেছে, এবার বেতন গেল পার্থর

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১৩৭ ঘণ্টা, আগস্ট ২৬, ২০২২
দল-মন্ত্রিত্ব আগেই গেছে, এবার বেতন গেল পার্থর

কলকাতা: পশ্চিমবঙ্গে সরকারি স্কুল শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি কাণ্ডে ইডির হাতে গ্রেফতারের পর পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে মন্ত্রিসভা থেকে অপসারণ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মন্ত্রিত্ব গেলেও তার বিধায়ক পদটি এখনও আছে।

তবে দল থেকে তার সব পদ গেছে। পাশাপাশি রাজ্যের মন্ত্রিসভা থেকে সাসপেন্ডেড পার্থ। এবার কোপ পড়ল তার বেতনে।

এখন থেকে বিধায়ক হিসেবে অন্যদের থেকে ৬০ হাজার টাকা কম বেতন পাবেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তিনি আর বিধায়ক হিসেবে বিভিন্ন মিটিংয়ে যোগ দেওয়ার জন্য অন্য কোনো ভাতাও পাবেন না।  

নিয়ম অনুযায়ী, কোনো রকম ভাতা ছাড়া পশ্চিমবঙ্গের বিধায়করা মাসে বেতন পেয়ে থাকেন ২১ হাজার ৮৭০ রুপি। এরপর যদি কোনো বিধায়ক পরিষদীয় কমিটির মিটিংগুলোতে যোগদান করেন তবে ভাতা হিসেবে সর্বোচ্চ ৬০ হাজার টাকা পেয়ে থাকেন। সেক্ষেত্রে পার্থর মোট বেতন ছিল ৮২ হাজার রুপি। পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভায় মোট ৪১টি কমিটি রয়েছে। কিন্তু পার্থ চট্টোপাধ্যায় এখন জেলে। সরকার তাকে সমস্ত কমিটি থেকে সরিয়ে দিয়েছে। ফলে তিনি এখন শুধু ২১ হাজার ৮৭০ রুপি বেতনটুকুই পাবেন।  

পশ্চিমবঙ্গে সরকারি স্কুল শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি কাণ্ডে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে গত ২২ জুলাই গ্রেফতার করেছে ইডি। বর্তমানে তিনি জেল হেফাজতে রয়েছেন। তার ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের দুই ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার করা হয়েছে প্রায় ৫৫ কোটি রুপি। সেইসঙ্গে বিপুল পরিমাণে স্বর্ণ, বৈদেশিক মুদ্রা উদ্ধার হয়েছে। যদিও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের দাবি, তিনি এ টাকার কথা কিছুই জানতেন না। এসব টাকা পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের। এরপরই রাজ্যজুড়ে তল্লাশিতে একের পর এক জায়গায় হদিশ মিলেছে পার্থর সম্পত্তির। তার সব ব্যাংক অ্যাকাউন্ট সিল করে দিয়েছে ভারতের আর্থিক তদন্তকারী সংস্থা (ইডি)।

বাংলাদেশ সময়: ১১১২ ঘণ্টা, আগস্ট ২৬, ২০২২
ভিএস/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa