ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৩ মে ২০২৪, ১৪ জিলকদ ১৪৪৫

পর্যটন

বাংলাদেশি পর্যটকদের ভ্রমণ ফি কমাতে ভুটানের প্রতি অনুরোধ

ডিপ্লোম্যাটিক করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২৩০৩ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৯, ২০২৪
বাংলাদেশি পর্যটকদের ভ্রমণ ফি কমাতে ভুটানের প্রতি অনুরোধ

ঢাকা: বাংলাদেশি পর্যটকদের জন্য বর্তমান ভ্রমণ ফি কমাতে ভুটানের প্রতি অনুরোধ করেছেন পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন।  

শুক্রবার (১৯ এপ্রিল) থিম্পুতে দুদেশের মধ্যে এক বৈঠকে তিনি এ অনুরোধ করেন।

 

বাংলাদেশ ও ভুটানের মধ্যে তৃতীয় ফরেন অফিস কনসালটেশন-এফওসি থিম্পুতে অনুষ্ঠিত হয়। এতে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে ছিলেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন।  

অপরদিকে, ভুটান প্রতিনিধি দলের নেতৃত্বে ছিলেন দেশটির পররাষ্ট্র সচিব পেমা চোডেন।  

এফওসিতে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের পুরো বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়। উভয় পররাষ্ট্র সচিব বাংলাদেশ ও ভুটানের মধ্যে বিদ্যমান চমৎকার দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে সন্তোষ প্রকাশ করেন। তারা পারস্পরিক স্বার্থের সব প্রধান ইস্যু নিয়ে আলোচনা করেন এবং সব খাত বিশেষ করে ব্যবসা-বাণিজ্য, স্বাস্থ্য, বিনিয়োগ, সংযোগ, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, পর্যটন, সংস্কৃতি এবং শিক্ষাসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে সহযোগিতা বাড়াতে সম্মত হন।

পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন মানুষের সঙ্গে মানুষের যোগাযোগ বাড়াতে ভুটানকে বিবিআইএন কাঠামোতে পুনরায় যোগ দেওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান জানান। বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব পর্যটকদের জন্য উন্নয়ন ফি প্রসঙ্গ উত্থাপন করেন এবং বাংলাদেশি পর্যটকদের জন্য বর্তমান এসডিএফ কমানোর অনুরোধ করেন। ভুটানি পক্ষ ইতিবাচক বিবেচনার আশ্বাস দিয়েছে। দুপক্ষ পর্যটন বৃদ্ধি এবং জনগণের মধ্যে যোগাযোগ বাড়াতে একসঙ্গে কাজ করতে সম্মত হয়েছে।  

উভয় পররাষ্ট্র সচিব ভুটানের রাজার সাম্প্রতিক বাংলাদেশ সফরের সময় গৃহীত সিদ্ধান্ত এবং সমঝোতা স্মারকগুলোর দ্রুত বাস্তবায়নের উপায় নিয়েও আলোচনা করেন।  

পেমা চোডেন অর্থনৈতিক, সাংস্কৃতিক এবং শিক্ষাগত ক্ষেত্রে অব্যবহৃত সম্ভাবনার অন্বেষণের ওপর জোর দেন এবং অর্থপূর্ণ সহযোগিতামূলক সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব করেন।  

তিনি উল্লেখ করেন, ভুটান বাংলাদেশের সঙ্গে আরও বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সহযোগিতা এগিয়ে নিতে চায়।  

ভুটানের পররাষ্ট্র সচিব দুদেশের মধ্যে সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ে সফর বিনিময়ের ওপর জোর দেন। উভয় পররাষ্ট্র সচিব পারস্পরিক স্বার্থের আঞ্চলিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন এবং আশা প্রকাশ করেন যে উভয় দেশ সার্ক ও বিমসটেক প্রক্রিয়াকে পুনরুজ্জীবিত করতে কাজ করে যাবে।  

বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব ভুটানের রাজকীয় সরকারের পররাষ্ট্র ও বৈদেশিক বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী লিওনপো ডিএন ধুংগেলের সঙ্গেও সাক্ষাৎ করেন। বৈঠকে তারা বাণিজ্য ও বিনিয়োগ, কুড়িগ্রামে বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল, বিদ্যুৎ খাতে সহযোগিতা, স্বাস্থ্য ও শিক্ষায় সহযোগিতা, আঞ্চলিক সহযোগিতাসহ পারস্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন। ভুটানে বাংলাদেশ দূতাবাস আয়োজিত জাতীয় দিবসের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন। তিনি থিম্পুতে বাংলাদেশ দূতাবাসের চ্যান্সারি ও আবাসিক নির্মাণ প্রকল্পের চলমান নির্মাণ কাজের অগ্রগতিও পরিদর্শন করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২২৫৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৯, ২০২৪
টিআর/এসআরএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।