ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯, ১২ আগস্ট ২০২২, ১৩ মহররম ১৪৪৪

দিল্লি, কলকাতা, আগরতলা

কলকাতায় কবি নজরুলের জমি দখল, মমতার সাহায্য চাইলেন খিলখিল কাজী

রক্তিম দাশ, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১২৪ ঘণ্টা, জুন ৭, ২০১১
কলকাতায় কবি নজরুলের জমি দখল, মমতার সাহায্য চাইলেন খিলখিল কাজী

কলকাতা: বাংলাদেশের জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের কলকাতার জমি দখলমুক্ত করতে মুখ্যমন্ত্রী মমতার কাছে আবেদন করেছেন কবির নাতনী খিলখিল কাজী।

১৯৬৯ সালে বাকরুদ্ধ অসুস্থ কবিকে তৎকালীন যুক্তফ্রন্ট সরকার একটি জমি দেন।

সেই জমিটি এখন দখল হয়ে গেছেÑ এমনটাই অভিযোগ খিলখিল কাজীর।

কলকাতার কেষ্টপুরে ওই জমিটিতে কবি পরিবার চেয়েছিল একতলা ছোট বাগানবাড়ি করতে। কিন্তু জমি বেদখল হয়ে যাওয়াতে তা আর সম্ভব হয়নি।

একই অবস্থা কবির বাসস্থান কলকাতার ক্রিস্টোফার রোডের সরকারি আবসনের অ্যাপার্টমেন্টটির। দীর্ঘদিন সংস্কারের অভাবে এখন এটি জরাজীর্ণ। তার ওপর এটির জন্য প্রতি মাসে রাজ্য সরকারকে ভাড়া দিতে হয় কবির পরিবারকে।

ঢাকা থেকে কলকাতায় এসে কবির প্রতি এ অবমাননার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছেন খিলখিল কাজী।

কলকাতার একটি সংবাদমাধ্যমে তার ওই প্রতিবাদের কথা প্রকাশিত হলে বাংলানিউজের পক্ষ থেকে তার সঙ্গে যোগযোগ করা হয়।

খিলখিল বাংলানিউজকে বলেন, ‘বিগত বামফ্রন্ট সরকারের সময় আমরা বারবার বলেও জমিটি উদ্ধার করতে পারিনি। কলকাতার বাংলা একাদেমী নজরুলের রচনা প্রকাশ করার দিন আমি, আমার মা উমা কাজি ও কাকিমা কল্যাণী কাজি উপস্থিত ছিলাম। ওনাকে (বুদ্ধদেব) তখন বলেছিলাম। তিনি বলেছিলেন পরে মহাকরণে দেখা করতে। পরে কিন্তু অনেক চেষ্টা করেও দেখা পাইনি ওনার। সব দলিলপত্র থাকার সত্ত্বেও আমরা আজও জমির দখল পেলাম না। ’

সাবেক বাম সরকার কবির প্রতি অন্যায় করেছে বলেও অভিযোগ করে তিনি।

খিলখিল কাজী বলেন, ‘কবির জন্মদিনে কলকাতার বাসভবনে কোনওদিন সরকারি উদ্যোগে অনুষ্ঠান হয়নি। এখানে কোনও সড়ক বা গলির নাম তার নামে নেই। অথচ এই ভবনটাতে জাদুঘর করা যেত। ’

তিনি আরও বলেন, ‘এ ভবনটির জন্য আমাদের প্রতি মাসে ভাড়া দিতে হয়। এখনও আবার এ আবাসনের দায়িত্বে থাকা কলকাতা ইমপ্রুভমেন্ট ট্রাস্ট বলছে বাড়িটা কিনে নিতে। আমরা বাড়িটা কিনে নিয়ে পরিবারের পক্ষ থেকেই জাদুঘর করব ঠিক করেছি। ’

তবে রাজ্যের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির প্রতি আশাবাদী তিনি।

ঢাকা থেকে তিনি জেনেছেন এবারই প্রথম সরকারি উদ্যোগে মমতা মহাকরণে কবি নজরুলের জন্মদিন পালন করেছেন। ওই দিনই ঘোষণা দিয়েছেন রাজ্যে নজরুল একাদেমী গড়ার। রেলমন্ত্রী থাকাকালিন কলকাতায় একটি মেট্রো রেলস্টেশন কবির নামে করেছেন।

খিলখিল জানালেন, মুখ্যমন্ত্রী তার সঙ্গে দেখা করতে চেয়েছেন।

মুখ্যমন্ত্রীর এ আমন্ত্রণে উচ্ছ্বসিত কবির পরিবার। নতুন করে তারা আশা করছেন এবার হয়তো কবি তার যথাযথ সম্মান পাবেন সরকারিভাবে।

বাংলাদেশ সময়: ১১১৫ ঘণ্টা, জুন ০৭, ২০১১

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa